ব্রিটিশ নারী এমপি হত্যা: ‘ব্রিটেন ফাস্ট’ বলে হত্যাকারীর চিৎকার

mp-deathআন্তর্জাতিক ডেস্ক – ব্রিটিশ লেবার পার্টির নারী সংসদ সদস্য জো কক্সকে (৪১) গুলি করে ও ছুরি মেরে হত্যা করা হয়েছে। নিজ সংসদীয় এলাকা ওয়েস্ট ইয়র্কশায়ারের ব্রিস্টলে বৃহস্পতিবার রাতে এক বন্দুকধারি দুটি গুলি করলে জো কক্স মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। পড়ে যাওয়ার পর জো কক্সের মুখে তৃতীয় দফা গুলি করে হামলাকারী। মাটিতে লুটিয়ে পড়া জো কক্সকে কয়েক দফা ছুরিও মারেন বন্দুকধারি। রক্তাক্ত অবস্থায় লেবার দলীয় এমপি কক্সকে উদ্ধার করে দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে যায় পুলিশ। চিকিৎসাধীন অবস্থায় ঘণ্টা খানেক পর মারা যান তিনি ।

এমপি জো কক্সকে গুলি ও ছুরিকাঘাতের আগে হত্যাকারী ‘ব্রিটেন ফাস্ট’ অর্থাৎ আগে ব্রিটেন বলে কয়েকবার চিৎকার দিয়েছিল। কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমগুলো এ তথ্য জানিয়েছে। গত ২৫ বছরের মধ্যে কক্সই প্রথম কোনো এমপি যিনি বন্দুকধারির গুলিতে প্রাণ হারালেন। এর আগে ১৯৯০ সালে আইরিশ রিপাবলিকানদের হামলায় কনজারভেটিভ একজন পার্লামেন্ট সদস্য মারা গিয়েছিলেন।

গ্র্যামি হাওয়ার্ড নামে এক প্রত্যক্ষদর্শী রয়টার্সকে জানিয়েছেন, হামলার সময় তিনি এক ব্যক্তিকে ‘ব্রিটেন ফাস্ট’ বলে চিৎকার করতে শুনেছেন।

ক্লার্ক রোথওয়েল নামে আরেক প্রত্যক্ষদর্শী জানিয়েছেন, হামলার সময় যে লোকটি ‘ব্রিটেন ফাস্ট, ব্রিটেন ফাস্ট’ বলে চিৎকার করছিল সে জো কক্স থেকে মাত্র কয়েক গজ দূরে ছিল।

তিনি বলেন, ‘ আমি ঘুরে দেখতে পেলাম মেঝেতে এক ব্যক্তি এক নারীর ওপর দাঁড়িয়ে আছে। তার হাতে একটি পুরোনো পিস্তল ছিল। সে তার দেহে আবারও গুলি করে। তৃতীয়বার ওই নারীর মুখে সে গুলির চেষ্টা করছিল।’

আমির তাহির নামে আরেক প্রত্যক্ষদর্শী জানিয়েছেন, তিনি বন্দুকধারীকে ‘ব্রিটেন ফাস্ট’ বলে চিৎকার করতে দেখেছেন।

ব্রিটিশ এমপি হত্যায় নিন্দা জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র, জার্মানিসহ বিশ্ব নেতারা। নিন্দা জানিয়েছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের আসন্ন নির্বাচনে প্রেসিডেন্ট পদে ডেমোক্র্যাট দলের সম্ভাব্য প্রার্থী হিলারি ক্লিনটন। বলেছেন, এ হত্যা বর্বর ও পৈশাচিক।

প্রয়াত এমপি জো কক্সের স্বামী ব্রেন্ডান কক্স বলেছেন, সুন্দর এক পৃথিবী প্রতিষ্ঠায় লড়েছেন তার স্ত্রী। তার সে স্বপ্ন বাস্তবে রুপ দিতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানান তিনি।

এদিকে জো কক্সের মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য থাকা নিয়ে ব্রিটেনে গণভোটের প্রচার স্থগিত করা হয়। ইউরোপীয় ইউনিয়নে ব্রিটেনের থাকার পক্ষে জোরালো অবস্থান ছিল বিরোধী লেবার পার্টির এ সংসদ সদস্যের। বেটলি অ্যান্ড স্পেন আসনে বিরোধী দল লেবার পার্টির এমপি ছিলেন প্রয়াত জো কক্স।

জো কক্স খুনে নিন্দা জানিয়েছেন লেবার পার্টি নেতা জেরেমি করবিন। ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরন এ ঘটনাতে দুঃখজনক আখ্যায়িত করে বলেছেন, প্রয়াত সংসদ সদস্য ছিলেন দায়িত্বশীল ও আদর্শের প্রতীক। এ ঘটনার পর গণভোট নিয়ে একটি সমাবেশের পরিকল্পনা বাতিল করেন ডেভিড ক্যামেরন।