‘বিএনপিকে জঙ্গি হিসেবে উপস্থাপন করাই সরকারের লক্ষ্য’

rijviসময়ের কণ্ঠস্বর – বিএনপিকে জঙ্গি হিসেবে উপস্থাপন করাই ক্ষমতাসীন সরকারের প্রধান লক্ষ্য বলে মন্তব্য করেছেন দলটির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

আজ শুক্রবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে সংবাদপত্রের কালো দিবস পালন উপলক্ষে ‘গণমাধ্যমের স্বাধীনতা ও আজকের বাস্তবতা’ শীর্ষক গোলটেবিল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এই মন্তব্য করেন।

রিজভী বলেন, সারাদেশব্যাপি পুলেশের সাঁড়াশি অভিযানের নামে আন্দোলনরত বিরোধী দলের নিরপরাধ, নিরীহ কর্মীদের গ্রেপ্তার করা হচ্ছে। প্রকৃত কোনো জঙ্গিকে ধরা হয়নি। সন্দেহভাজন বলে যে ১৪৫ জনকে ধরা হয়েছে তাদের পরিচয় নিয়ে সন্দেহ রয়েছে। বিরোধী দলের যেসব নেতাকর্মীকে ধরা হয়েছে তাদের কাছ থেকে এখন জঙ্গি বলে স্বীকারোক্তি নেওয়ার চেষ্টা করা হচ্ছে। যেভাবেই হোক বিরোধী দলকে জঙ্গি হিসেবে উপস্থাপন করাই তাদের লক্ষ্য।

বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ডের খবর গণমাধ্যমে সঠিকভাবে প্রকাশিত হচ্ছে না মন্তব্য করে বিএনপির এই নেতা বলেন, অধিকাংশ মিডিয়ার মালিক হয় সরকারের পক্ষের, না হয় ভয়ে মুখ খুলছেন না। কিন্তু এর পরিণাম ভালো হবে না। আপনারাও এই সরকারের হাত থেকে রেহাই পাবেন না।

ভারতের কাছে সার্বভৌমত্ব বিকিয়ে দেয়া হচ্ছে দাবি করে বিএনপির এই নেতা বলেন, শেখ হাসিনার বক্তব্য হলো তোদের যত লাগে নেক, শুধু আমার সিংহাসন আর মুকুটটি যেন ঠিক থাকে। আর তারা বলছে হাসিনা অকৃত্রিম বন্ধু।

তিনি বলে, বন্ধু আপনাদের হতে পারে, দেশের মানুষের না।

আয়োজক সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুল করিম খানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত এ সভায় আরো বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির মহাসচিব এম আমিনুর রহমান, স্বাধীনতা ফোরামের সভাপতি আবু নাসের মোহাম্মদ রহমতউল্লাহ, গোলাম মোস্তফা ভূইয়া, সাবেক ছাত্রনেতা মনিরুজ্জান মনির প্রমুখ।