আত্রাই সরকারী খাদ্যগুদামে প্রভাবশালী মহলের সিন্ডিকেট

নাজমুল হক নাহিদ, আত্রাই প্রতিনিধি:


nouga.jpgraj

নওগাঁর আত্রাই সরকারী খাদ্যগুদামে কৃষকরা সরাসরি ধান বিক্রি করতে পারছেনা। ধান বিক্রির জন্য সিন্ডিকেটের কাছে ধর্ণা দিয়ে তাদের অনুমতিপত্র পেলে গুদামে ধান বিক্রি করা যায় অন্যথায় না। এমন অভিযোগ ভূক্তভোগী কৃষকদের।

জানা যায়, এবারে সরকারীভাবে বোরো ধান ক্রয়ের জন্য আত্রাই সরকারী খাদ্যগুদামে ২ হাজার ৬৯৬ মেঃ টন বরাদ্দ দেয়া হয়। ২৩ টাকা কেজি দরে সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ধান ক্রয়ের কথা থাকলেও বাজারে ধানের দাম কম থাকায় প্রভাবশালী মহল সেখানে সিন্ডিকেট গড়ে তোলায় কৃষকরা গুদামে ধান বিক্রি করতে পারছেনা।

পারকাসুন্দা গ্রামের কৃষক শমসের আলী বলেন, আমি খাদ্যগুদামে ধান বিক্রির জন্য অতিরিক্ত ব্যয় করে উপযোগী করে প্রস্তুত করি। কিন্তু পরে আমাকে বলা হয় অমুক ব্যক্তির অনুমতিপত্র না নিয়ে এলে ধান নেয়া যাবে না। অথচ আমার কাছে বরাদ্দ স্লিপ, কৃষি কার্ড সহ সব কিছুই ছিল। উপজেলার হাটুরিয়া গ্রামের ধান ব্যবসায়ী আরমান বলেন, আমি এলাকা থেকে ধান ক্রয় করে গুদামে যে ১৩/১৪ জন প্রভাবশালী মহলের সিন্ডিকেট আছে তাদের নিকট বিক্রি করি এবং ধান গুদামের উপযুক্ত করে গুদাম পর্যন্ত আমাদেরকেই পৌঁছে দিতে হয়।

এ ব্যাপারে আত্রাই খাদ্যগুদামের ওসি এলএসডি (ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) মোহাম্মদ আলী সময়ের কণ্ঠস্বরকে বলেন, ধান ক্রয় কমিটির উপদেষ্টা সংসদ সদস্য মহোদয় এবং উপজেলা পর্যায় সভাপতি ইউএনও সাহেব। তাদের নির্দেশনার বাইরে আমার করার কিছু নেই। ধান ক্রয়ের নীতিমালা অনুসরণ করেই কৃষকদের কার্ডের ভিত্তিতে ধান ক্রয় করা হচ্ছে।