ভারতীয় ঋণের প্রকল্পে স্থবিরতা, প্রকপ্লের মেয়াদ শেষ, পর্যালোচনা বৈঠক আজ

সময়ের কণ্ঠস্বর – ছয় বছর আগে ভারতীয় ঋণের ৬৭৮ কোটি ৫১ লাখ টাকা ব্যয়ে রেলওয়ের কুলাউড়া থেকে শাহবাজপুর সেকশন পুনর্বাসন প্রকল্প নেয় রেলপথ মন্ত্রণালয়। চলতি অর্থবছরের মার্চ পর্যন্ত প্রকল্পটির বিপরীতে এক টাকাও ব্যয় হয়নি। এরই মধ্যে প্রকল্পের মেয়াদ শেষ হয়েছে। আবারো দুই বছর মেয়াদ বাড়িয়ে ২০১৭ সালের জুনের মধ্যে শেষ করার নতুন লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। কিন্তু এ সময়ের মধ্যেও এ প্রকল্প বাস্তবায়ন অনিশ্চিত বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা।

শুধু এ প্রকল্প নয়, ভারতের প্রথম ঋণের আওতায় ২০১০ সালে নেওয়া ১৪টি প্রকল্পের মধ্যে ৭ প্রকল্পে স্থবিরতা বিরাজ করছে। মোট ৮৬ কোটি ২০ লাখ ডলারের মধ্যে ছাড় হয়েছে মাত্র সাড়ে ২৮ কোটি ডলার। এ হিসাবে দুই-তৃতীয়াংশ অর্থ এখনও ছাড় হয়নি। এ পরিপ্রেক্ষিতে প্রত্যেকটি প্রকল্প পর্যালোচনার জন্য দুই দেশের উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক অনুষ্ঠিত হতে হচ্ছে বুধবার। এ বৈঠকে দ্বিতীয় এলওসির ২০০ কোটি ডলারের প্রকল্পের অবস্থাও পর্যালোচনা করা হবে।

রাজধানীর শেরেবাংলা নগরের এনইসি সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠেয় এ বৈঠকে বাংলাদেশের পক্ষে নেতৃত্ব দেবেন অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের (ইআরডি) যুগ্ম সচিব (এশিয়া) জাহাঙ্গীর আলম। ভারতীয় প্রতিনিধি দলের পক্ষে থাকছেন দেশটির যুগ্ম সচিব (উন্নয়ন অংশীদারিত্ব) অজিত বিনায়েক গুপ্ত। এ ছাড়া পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, ভারতীয় হাইকমিশন এবং প্রকল্প পরিচালকরা এ বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন।