নিজের শাড়ির কারিগরকে পুরস্কৃত করলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী

porddhan

অন্তু দাস হৃদয়, টাঙ্গাইল প্রতিনিধি: সব বয়সের নারীর প্রথম পছন্দ টাঙ্গাইলের ঐতিহ্যবাহী শাড়ি। এবার সেই শাড়ির প্রশংসা করলেন খোদ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। নিপুন হাতের কারুকাজ, বাহারি রঙ আর গুণগত মান দেখে তিনি মুগ্ধ।

টাঙ্গাইল দেলদুয়ার উপজেলার শাড়ি ব্যবসায়ী যজ্ঞেশ্বর অ্যান্ড কোং এর তৈরি তাঁতের শাড়ি পড়ে মন্ত্রী বাজেট অধিবেশনে অংশ নেন। প্রধানমন্ত্রী টাঙ্গাইল শাড়ির কদর দেখিয়ে সেই শাড়ির কারিগর হুমায়ন মিয়ার হাতে এক লাখ টাকা পুরস্কার তুলে দেন।

গত (২২ জুন ) বুধবার গণভবনে আমন্ত্রণ জানিয়ে ওই কারিগরকে পুরস্কৃত করেন প্রধানমন্ত্রী। এ সময় টাঙ্গাইল শাড়িকে আরো সমৃদ্ধ করতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থার আশ্বাস দেন তিনি।

গত এক মাস আগে টাঙ্গাইল-৫ সদর আসনের সংসদ সদস্য ছানোয়ার হোসেন (এমপি) টাঙ্গাইল তাঁত পল্লীর তৈরি একটি শাড়ি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে উপহার দেন। প্রধানমন্ত্রী শাড়ির গুণগত মান দেখে মুগ্ধ হন। পরে ওই শাড়ির প্রস্তুতকারক হুমায়ন মিয়াকে পুরস্কৃত করেন।

শাড়িটির কারিগর হুমায়ন মিয়া সময়ের কন্ঠস্বর’কে জানান, আমার মতো একজন সাধারণ কারিগরকে পুরস্কৃত করা মানে টাঙ্গাইলের সকল তাঁতীদের পুরস্কৃত করা। টাঙ্গাইল শাড়িকে প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে স্বীকৃতি পাওয়া। প্রধানমন্ত্রীর হাত থেকে পুরস্কার পেয়ে তিনি গর্বিত। সব তাঁত শিল্পীরা প্রধানমন্ত্রীর কাছে কৃতজ্ঞ।

যজ্ঞশ্বের কোং- এর স্বত্বাধিকারী ও তাঁত শিল্পী সমিতির সভাপতি রঘুনাথ বসাক সময়ের কন্ঠস্বর’কে জানান, টাঙ্গাইল সদরের এমপি ছানোয়ার হোসেন তার কাছ থেকে একটি শাড়ি কিনে প্রধানমন্ত্রীকে উপহার দেন। পরে প্রধানমন্ত্রী সেই শাড়ি পছন্দ করে শাড়িটির কারিগরকে বুধবার গণভবনে ডেকে এক লাখ টাকা পুরস্কার দেন। সাধারণ একজন কারিগরকে এ রকম উৎসাহ মূলক পুরস্কারে তাঁত শিল্পীরা প্রেরণা পেয়েছে।

এদিকে সাধারণ তাঁতীদের হস্তশিল্পের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর উৎসাহ প্রদানে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছে তাঁত পল্লীর তাঁতী, শাড়ি ব্যবসায়ী সহ সংশ্লিষ্টরা।