ফাইনালের আগে শংকা কাটিয়ে সুখবর পেলো আর্জেন্টিনা

স্পোর্টস আপডেট ডেস্ক : গ্রুপ পর্বে পানামার বিপক্ষে আর্জেন্টিনার ৫-০ গোলের জয়ের ম্যাচের প্রথমার্ধে ডান ঊরুতে ব্যথা নিয়ে মাঠ ছেড়েছিলেন ডি মারিয়া। পরে পরীক্ষায় জানা যায়, তার পায়ের অ্যাডাক্টর মাংসপেশি সামান্য ছিড়ে গেছে।

এ নিয়ে ছিল হাজারো আশংকা তবে শতবার্ষিকী কোপা আমেরিকার ফাইনালের আগে একটা সুখবরই পেল আর্জেন্টিনা। চোট থেকে সেরে উঠেছেন দলটির তারকা মিডফিল্ডার অ্যাঙ্গেল ডি মারিয়া।

সেই চোট কাটিয়ে ডি মারিয়া ফাইনালে খেলার অপেক্ষায় আছেন বলে জানিয়েছেন আর্জেন্টিনা কোচ জেরার্ডো মার্টিনো। তবে চোটে পড়া আরেক খেলোয়াড় নিকোলাস গাইতানকে নিয়ে কিছুটা শঙ্কা আছে।

argentina

মার্টিনো বলেন, ‘শারীরিক দিক থেকে অ্যাঙ্গেল (ডি মারিয়া) নিকোর (গাইতান) চেয়ে এগিয়ে আছে। অ্যাঙ্গেল (সেমিফাইনালের জন্য) তৈরি ছিল এবং নিকোর আরো সম্প্রতি পেশির সমস্যা হয়েছে। আমি জানি না, রোববারের জন্য তার পুরো সেরে ওঠার সুযোগ আছে কিনা।’

টানা তিন বছরে তৃতীয়বার ফুটবলের বড় টুর্নামেন্টের ফাইনালে উঠেছে আর্জেন্টিনা। ২০১৪ ব্রাজিল বিশ্বকাপের ফাইনালে জার্মানির কাছে হারের পর গত বছর কোপার ফাইনালে চিলির কাছে শিরোপা স্বপ্ন ভাঙে আলবিসেলেস্তেদের।

পরিসংখ্যানে আমেনিকার চেয়ে এগিয়ে আর্জেন্টিনা। এর আগে ৯ বার মুখোমুখি হয়েছে আর্জেন্টিনা ও আমেরিকা। ৫ বার জয় পেয়েছে আর্জেন্টিনা। অন্যদিকে মাত্র দুইবার জিতেছে আমেরিকা। এদিক থেকে আমেরিকার চেয়ে এগিয়ে আর্জেন্টিনা। সেমি-ফাইনালের এ লড়াইয়ে যে দল জিতবে সে দলই যাবে ফাইনালে।

মেসিকে নিজ দেশের হয়ে খুব কমই জ্বলে উঠতে দেখা যায়। কিন্তু এবার ভালো খেলছেন তিনি। টুর্ণামেন্টের লড়াই প্রতিটি ম্যাচে জয় পেয়ে আসছে আর্জেন্টিনা। টুর্ণামেন্টে সর্বাধিক ১৪ টি গোল করেছে আর্জেন্টিনা।

এ দিক থেকেও এগিয়ে আর্জেন্টিনা। সেমি-ফাইনালে আমেরিকা প্রতিরোধ গড়ে তোলার চেষ্টা করলেও ভাগ্য চাকা আর্জেন্টিনার পক্ষে যাওয়ারই কথা। গতবার ফাইনালে চিলির কাছে হেরে যায় আর্জেন্টিনা।

শতবার্ষিকী কোপার ফাইনালে আর্জেন্টিনার সামনে আবারও সেই চিলি। যুক্তরাষ্ট্রের ইস্ট রাদারফোর্ডে বাংলাদেশ সময় আগামী সোমবার ভোর ৬টায় শুরু হবে শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচটি। এবার চিলিকে হারিয়ে ১৯৯৩ সালের পর প্রথম কোনো বড় টুর্নামেন্টের শিরোপা ঘরে তুলতে পারবে আর্জেন্টিনা?