“সালথার একজন নিঃস্বার্থ মানুষের গল্প” (পর্ব-২)

saltha-news

হারুন-অর-রশীদ, ফরিদপুর প্রতিনিধি: “মসজিদের পাঁশে আমার কবর দিও ভাই, যেন গোরে থেকেও মোয়াজ্জিনের আযান শুনতে পাই।” নজরুলের এই অমর গজলটির মর্মবাণী যার মাঝে খুঁজে পাওয়া যায় তিনি হলেন সালথা উপজেলার গোয়ালপাড়া গ্রামের জালাল মাতুব্বরের ছেলে মোঃ ইলিয়াছ মিয়ার মধ্যে। তাঁর ধ্যান-ধারণা শুধু এই পার্থিব সুখ কেন্দ্রিক-ই নয়। ভাবেন পরকালের কথাও।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, জরাজীর্ণ ছোট্র একটা নীড়। আর এই নীড়েই বসবাস করছে ইলিয়াছ মিয়ার পরিবারটি। সালথা উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক মোঃ শহীদুল হাসান খাঁন (সোহাগ) ইলিয়াস মিয়া সম্পর্কে সময়ের কণ্ঠস্বরকে জানান, এই স্মিত হাস্যজ্জ্বোল মানুষটি কখনো নিজের সুখের কথা ভাবেন না। ভাবেন এ দেশের প্রতিটা অসহায় মানুষের নির্ঘুম রাত কাটানোর কথা।

এ ব্যাপারে ইলিয়াস মিয়ার সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ভাই আমরা এই পৃথিবীতে সারাজীবন থাকবোনা। তাই অসহায় ও দারিদ্র মানুষকে ভালোবাসলে আল্লাহ্ তাঁকে ভালোবাসেন।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ইলিয়াছ মিয়া শুধু দিতেই জানে কারোও কাছ থেকে কিছু নিতে জানে না । জনগণকে দিতে দিতে আজ অনেকটা নিঃস্ব হওয়ার পথে এই হাস্যজ্জ্বোল মানুষটি।