সরকারি কর্মজীবীদের মতো মুক্তিযোদ্ধাদের জন্যও ঈদ বোনাস চাইলেন মন্ত্রী

সময়ের কণ্ঠস্বর – সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মতো মুক্তিযোদ্ধাদের জন্যও ঈদ বোনাস চাইলেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক।

আজ রবিবার জাতীয় সংসদে ২০১৬-১৭ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটের ওপর সাধারণ আলোচনায় অংশ নিয়ে এ মন্তব্য করেন তিনি।

আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেন, সকল সরকারী কর্মকর্তা-কর্মচারীরা ঈদ বোনাস পাবে। আর আমার মুক্তিযোদ্ধারা পাবে না। তাই মুক্তিযোদ্ধাদের আকুতি দুই ঈদ, ২৬ মার্চ, ১৬ ডিসেম্বর ও বৈশাখী ভাতা চালু করা হোক।

এজন্য প্রধানমন্ত্রী ও অর্থমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করে মন্ত্রী বলেন, আমি হিসাব করে দেখেছি দুই ঈদে ৪ হাজার করে ৮ হাজার, ২৬ মার্চ ৫ হাজার, ১৬ ডিসেম্বর ৫ হাজার ও বৈশাখে ২ হাজার মোট ২০ হাজার টাকা বছরে খরচ হবে একজন মুক্তিযোদ্ধার জন্য। এতে বছরে ৪শ’ কোটি টাকা লাগে। তাই প্রধানমন্ত্রী ও অর্থমন্ত্রী মুক্তিযোদ্ধাদের প্রাণের এ দাবি মেনে নেবেন আশা করি।

mojammel songsodমন্ত্রী বলেন, সব মুক্তিযোদ্ধাদের দেশের অভ্যন্তরের সব হাসপাতালে বিনামূল্যে চিকিৎসা নিতে পারবেন, সেই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। বিদেশেরটা এখনো সিদ্ধান্ত হয়নি।

তিনি বলেন, মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকা করা হয়েছে। অচিরেই তা অনলাইনে দেওয়া হবে। মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য ৮ ধরনের আইডি কার্ড দেওয়া হবে। দেশের টাকা জাল হতে পারে, কিন্তু মুক্তিযোদ্ধাদের কার্ড জালিয়াতি হবে না।