এবার ভিন্ন স্বাদে খেতে পারেন মজাদার আলুর সাথে ভাঁজা পোস্ত

আফসানা নিশি, কন্ট্রিবিউটার লাইফস্টাইল রাইটার, সময়ের কণ্ঠস্বর।

আলু তো আমাদের দৈনন্দিন খাবারের একটি অংশ। প্রায় প্রতিদিনের খাবারের থাকে আলু। কিন্তু আলু দিয়ে আমরা কয়টা রান্না বা জানি। সেই একঘেয়ে আলু দিয়ে মাঝের ঝোল,আলু ঘন্ট,আলু ভাজা,আলু পোস্ত বা আলুর চপ। এগুলো খেতে খেতে মুখের স্বাদ নষ্ট হয়ে গেছে?

আরে চিন্তা কি স্বাদ বদলে ফেলুন।সেই জন্য তো আছে ভিন্ন ধর্মী সব রেসিপি ।আজ দেখে নিন দারুন স্বাদের এশিয়ান এই ‘আলুর সাথে ভাজা পোস্ত’ রেসিপি।

আলুর সাথে ভাজা পোস্তঃ

উপকরণ:
৩ টি আলু
২ টেবিল চামচ অলিভ অয়েল
৩ টেবিল চামচ পোস্ত দানা
১/২ চা চামচ মৌরি দানা
১/২ চা চামচ জিরা
১/২ চা চামচ পেয়াজ কুচি
১/২ চা চামচ কালো সরষে
২ টা শুকনো মরিচ
১/২ চা চামচ হলুদ গুড়ো
১/২ চা চামচ লবন
১/৪ কাপ গরম পানি

alu posta
প্রণালী:

১।আলুর খোসা ছাড়িয়ে গোল করে কাটুন। একটা আলু থেকে ৪ টুকরো করবেন।

২।চুলাতে ননস্টিক কড়াই দিয়ে মাঝারি আঁচে পোস্তদানা বাদামী করে ভেজে নিন।খুব সাবধানে ভাজবেন যাতে পুড়ে না যায় বা কাঁচা না থাকে।

৩।পোস্তদানা অন্য পাত্রে নামিয়ে নিয়ে ওই কড়াইতে তেল দিন। তেল গরম হলে চুলার আঁচ আস্তে দিয়ে এতে সরিষা,জিরা,মৌরি দিন। ১ মিনিট নেড়ে পেয়াজ দিন।যতক্ষণ না বাদামী রঙ হয় ততোক্ষণ ভাজতে থাকুন।ভাজা হলে এতে হলুদ গুড়ো ও আলু দিন।ভাল করে মিশিয়ে নিয়ে গরম পানি দিন।চুলার আঁচ আস্তে রেখেই ১৫ মিনিট রান্না করুন। (প্রয়োজন হলে আর একটু পানি যোগ করতে পারেন)

৪।ভেজে রাখা পোস্ত দানা গুড়ো করে নিন। আলু পানি শুষে নিয়ে ঝোল গা মাখা হলে এতে পোস্ত গুড়া দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে নিন। চুলায় মাঝারি আঁচ দিয়ে ঝোল শুকিয়ে নিন।আলু শুকনো শুকনো হয়ে গেলে নামিয়ে ফেলুন।

চাইলে নামানোর আগে উপরে ধনে পাতা বা ভাজা জিরা গুড়া ছড়িয়ে দিতে পারেন। পরিবেশ করুন গরম ভাত বা রুটির সাথে।ভাত দিয়ে খেলে সাথে রাখতে পারেন একটুকরো লেবু।

অসাধারণ এই খাবারটি সকালের নাস্তা বা রাতের খাবারের জন্য হতে পারে মুখরোচক। একবার চেষ্টা করে দেখুন,কথা দিয়ে যাচ্ছি সবাই প্রশংসা করতে বাধ্য থাকবে।