ঈদে স্ত্রীর পছন্দের লেহেঙ্গা না দিতে পেরে ‘ব্যর্থ জীবনের ইতি’ টানলেন আকাশ নামের এক যুবক !

৯:৫৮ অপরাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, জুলাই ৭, ২০১৬ আলোচিত, স্পট লাইট

দিঘলিয়া প্রতিনিধি,সময়ের কণ্ঠস্বর –

নিজেদের পছন্দেই দুজনের বিয়ে হয়েছিলো বছরখানেক আগেই । এবারের ঈদে স্বামীর কাছে নতুন স্ত্রীর দাবী ছিলো দামী একটি লেহেঙ্গার। স্বামী একটি বেসরকারী প্রতিষ্ঠানে অল্প বেতনের শ্রমিক। স্ত্রীর সে এই শখ পুরনের ইচ্ছেও ছিলো স্বামীর।

স্থানীয়রা বলছে, তবে শেষ অবধি সাধ আর সাধ্যের ঠিকঠাক সমন্বয় ঘটাতে পারেননি অল্প আয়ের যুবক। তাই  হয়তো নিজের প্রতি চরম অভিমানেই যুবক ইতি টানলো তার ‘ব্যর্থ জীবনের’।

ঈদের আগে বুধবার রাতে খুলনার দিঘলিয়া উপজেলার দেয়াড়া গ্রামে নিজের ঘরের আড়ার সঙ্গে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন খুলনার একটি বেসরকারী মিলের শ্রমিক আকাশ (২৩)। এবারের ঈদে স্ত্রীর পছন্দমত পোশাক কিনতে ব্যর্থ হওয়ায় ক্ষোভে দুঃখে স্ত্রীর সাথে অভিমান করে আত্মহত্যা করেছে বলে  দাবী পরিবারের।

 আকাশ স্থানীয় শাহানাজ জুট মিলের শ্রমিক ছিলেন বলে জানা গেছে ।

suiccide_68755

পারিবারিক সুত্র ও পুলিশ সময়ের কণ্ঠস্বরকে জানায়, ‘বেতন একটু দেরিতে পাওয়ায় ঈদ উপলক্ষে স্ত্রীর জন্য বুধবার বিকেলে একটি লেহেঙ্গা ও পরিবারের অন্যান্যদের জন্য কিছু কাপড় কিনে সন্ধ্যায়  বাসায় ফিরে  আকাশ। কিন্তু স্বামীর পছন্দ করা অথবা সাধ্যমতো কেনা সেই লেহেঙ্গাটি  স্ত্রীর পছন্দ না হওয়ায় দুজনের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয় ।

এক পর্যায়ে রাত আটটার পরে  ক্ষোভে-দুঃখে আকাশ পাশের একটি ঘরের আড়ার সঙ্গে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন। বেশ কিছুক্ষন পর আকাশকে খোজাখুজির একপর্যায়ে পাশের ঘরের আড়ায় ফাঁস দিয়ে  ঝুলন্ত অবস্থায় পাওয়া যায়।

এ ঘটনায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে ঐ পরিবার  সুহ আশেপাশের এলাকায়। অন্যদিকে, নিজের ভুল বুঝতে পেরে বারবার মুর্ছা যাচ্ছেন আকাশের স্ত্রী।

দিঘলিয়া থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ময়না তদন্তের জন্য পাঠিয়েছেন।