প্রতিবেশী মাদ্রাসাছাত্রীকে ধর্ষণ চেস্টায় আটক লম্পট এক কলেজছাত্র

১১:১৮ পূর্বাহ্ণ | সোমবার, জুলাই ১১, ২০১৬ অপরাধ, আলোচিত, খুলনা, দেশের খবর

বাগেরহাট প্রতিনিধি :

বাগেরহাটের শরণখোলায় এক মাদরাসাছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে মহিউদ্দিন (১৯) নামের এক কলেজছাত্রকে আটক করেছে পুলিশ। আহত ওই ছাত্রীকে শরণখোলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার উন্নত চিকিৎসার জন্য বাগেরহাট সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেছেন।

রোববার সকাল ৯ টার দিকে ধর্ষণ চেষ্টার ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও ক্ষতিগ্রস্ত ছাত্রীর পরিবার সূত্র জানায়, উপজেলার ধানসাগর ইউনিয়নের নলবুনিয়া গ্রামের বাসিন্দা রায়েন্দা বাজারের ব্যবসায়ী মোঃ ইদ্রিস আলী হাওলাদারের ছেলে ও শরণখোলা ডিগ্রি কলেজের বাণিজ্য বিভাগের শিক্ষার্থী মহিউদ্দিন রোববার সকাল ৯টার দিকে তাদের বসত বাড়িতে অবস্থান করছিল।

HARASSMENTএ সময় তার প্রতিবেশী আকন্দপাড়া মাদরাসার সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী (১২) একটি ভেজা কাপড় রোদে শুকানোর উদ্দেশ্যে মহিউদ্দিনের ঘরের সামনে যায়। ওই সময় মহিউদ্দিনের মা-বাবা ঘরে না থাকার সুযোগে ওই ছাত্রীকে জোর করে ধরে ঘরের মধ্যে নিয়ে যায় সে। পরে দরজা বন্ধ করে দিয়ে তাকে ধর্ষণের চেষ্টা চালায় মহিউদ্দিন।

উভয়ের ধস্তাদস্তির এক পর্যায়ে ওই ছাত্রী চিৎকার দিলে পাশের ঘর থেকে তার দাদী নজিরন বেগম (৫৫) ঘরের দরজা ধাক্কা দিলে লম্পট মহিউদ্দিন পিছনের দরজা খুলে পালিয়ে যায়।

পরে আহত অবস্থায় ওই ছাত্রীকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। একই সাথে স্থানীয়দের সহযোগিতায় মহিউদ্দিনকে ধরে শরণখোলা থানা পুলিশকে অবহিত করলে পুলিশ তাকে আটক করে।

পুলিশের হাতে আটক হওয়া মহিউদ্দিন দাবি করে, ওই ছাত্রীকে সে ধর্ষণের চেষ্টা করেনি। কথা বলার উদ্দেশ্যে ঘরের মধ্যে ডেকে নিয়ে ছিল।

এ বিষয় শরণখোলা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল জলিল সময়ের কণ্ঠস্বরকে জানান, মহিউদ্দিনকে ইতোমধ্যে আটক করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

Loading...