সংবাদ শিরোনাম
খোলা মাঠে প্রকাশ্যে বৃদ্ধকে উলঙ্গ করে নির্যাতনের ভিডিও ভাইরাল | ঝিনাইদহে পাট ক্ষেতে নিয়ে ৮ বছরের শিশুকে বৃদ্ধের ‘ধর্ষণ চেষ্টা’ | হাসপাতাল থেকে রোগী ফেরানো শাস্তিযোগ্য অপরাধ: তথ্যমন্ত্রী | নান্দাইলে বিটিভি’র শিল্পী টাপ্পিসহ আরো ৪ জন করোনায় আক্রান্ত | সরকার গণপরিবহন সিন্ডিকেটের কাছেই আত্মসমর্পণ করেছে: রিজভী | সব বাধা অতিক্রম করে দেশ এগিয়ে যাবে: প্রধানমন্ত্রী | করোনা চিকিৎসায় গেম চেঞ্জার ওষুধের অনুমোদন দিলো রাশিয়া | ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে স্বাস্থ্যবিধি না মেনেই চলছে গণপরিবহন | ‘১৫ জুনের মধ্যে হজের বিষয়ে সিদ্ধান্ত আসতে পারে’- ধর্ম প্রতিমন্ত্রী | করোনায় প্রথমবারের মতো এক রোহিঙ্গার মৃত্যু |
  • আজ ১৯শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

আজ থেকে চালু হলো থানায় গিয়ে জিডি করার নতুন প্রক্রিয়া

৬:০৪ অপরাহ্ণ | সোমবার, জুলাই ২৫, ২০১৬ Breaking News, জাতীয়

সময়ের কণ্ঠস্বর – বিভিন্ন কারণে পুলিশের সহযোগিতার আশায় থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করে ভুক্তভোগী মানুষ। থানায় গিয়ে কীভাবে জিডি করতে হয় তা হয়তো অনেকেই জানেন না। অনেকেই ঝামেলা মনে করে জিডি করা থেকে বিরত থাকেন। এ ঝামেলা শেষ হতে যাচ্ছে।

ঢাকা মহানগর পুলিশ জিডি লেখার ক্ষেত্রে যুগোপযুগী পরিবর্তন আনতে যাচ্ছে। প্রতিটি থানায় জিডি বুক সরবরাহ করতে যাচ্ছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি)।

ঢাকা মহানগর পুলিশের মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, থানায় জিডি করতে আসা ভুক্তভোগীরা অনেক সময় ভোগান্তিতে পড়েন। কলম, সাদা কাগজ এবং অনেক সময় ডুপ্লিকেট কপির জন্য ফটোকপিও করতে হয় ভুক্তভোগীকে।

অনেক সময় থানা পুলিশের বিরুদ্ধে জিডি বাবদ ৫০/১০০ টাকা খরচা নেয়ারও অভিযোগ ওঠে। এখন থেকে আর এসবের কিছুই করতে হবে না।

জিডি বুকে সবই থাকবে। ভুক্তভোগীরা জিডি বুকে নিজেদের সমস্যার কথা উল্লেখ করে স্বাক্ষর করে জমা দেবেন। জিডি বুকের মাধ্যমে কার্বন কপিও পেয়ে যাবেন সহজেই। ফটোকপির ঝামেলাও আর পোহাতে হবে না।

49795_190

এ ব্যাপারে ঢাকা মহানগর পুলিশের মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের সিনিয়র সহকারী কমিশনার (এসি) এএসএম হাফিজুর রহমান গণমাধ্যমকে বলেন, সোমবার বিকেলে ডিএমপি সদর দফতরে কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া প্রতিটি থানায় জিডি বুক উদ্বোধন করেছেন। জিডি বুক সরবাহ করেছেন তিনি। আজ থেকেই জিডি করার এ নতুন প্রক্রিয়া চালু হলো।

তিনি বলেন, জিডি করার ক্ষেত্রে সাধারণত ঘটনাস্থলকেই প্রাধান্য দেয়া হয়। যে এলাকার ঘটনা সে এলাকার থানাতেই জিডি করা উচিত। অন্য থানায় জিডি করলে আইনি সহায়তা নিতে ঝামেলা হতে পারে।

জিডির সব প্রক্রিয়া শেষ হলে জিডি নম্বর, তারিখ এবং অফিসারের স্বাক্ষর ও সিল সংযুক্ত জিডি কপিটি নথিভুক্ত করা হবে। এর একটি কপি ভুক্তভোগী সংরক্ষণ করতে পারবেন।