চোখের জেলি ও রেটিনা নষ্ট হয়ে যাচ্ছে ইবি ছাত্র নাজমুল হকের

৯:১১ অপরাহ্ণ | রবিবার, সেপ্টেম্বর ৪, ২০১৬ খুলনা, দেশের খবর

আরাফাতুজ্জামান, ঝিনাইদহ প্রতিনিধি- দরিদ্র ঘরে জেন্মছিলো বলে বাড়িতে পড়ালেখা হয়নি মেধাবী ছাত্র নাজমুল হকের। বাড়ির পরিবর্তে তার স্থান হয়েছিলো জীবননগর শহরের এতিম খানায়। unnamed২০১৩ সালে এতিমখানা থেকেই দাখিল পাস করার পর বদরগঞ্জ বাকি বিল্লাহ (রঃ) কামিল মাদ্রাসায় ভর্তি হন তিনি। সেখানেও লিল্লাহ বোর্ডিং ও কখনো লজিং থেকে আলীম পরীক্ষায় কৃতিত্বের সাথে পাস করেন নাজমুল। আর্থিক অভাব আর নানা অনটনে বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার বাসনা ছিটকে যাওয়া মুহুর্তে ঝিনাইদহ শহরের এক ব্যাংক কর্মকর্তার সহায়তায় ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা দেন নাজমুল।

প্রচন্ড মেধাবী আর ইচ্ছা শক্তির বদৌলতে নাজমুল ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে সুযোগ পেয়ে যান। ২০১৫ সালে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হন ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতিক বিভাগে। জীবনের প্রতিটি বাঁকে বাঁকে লড়াই করা নাজমুল এখন রোগের কাছে পরাস্থ। তার ডান চোখের রোটিনা ও জেলি নষ্ট হয়ে গেছে। জরুরী ভাবে চিকিৎসা করতে না পারলে তার দুই চোখ অন্ধ হয়ে যেতে পারে। এ জন্য প্রয়োজন পাঁচ লাখ টাকা।

ঝিনাইদহ শহরের হামদহ সাধুপতিরাম স্কুলের পাশে একটি জামে মসজিদে পনেরশ টাকা বেতনে মোয়াজ্জিন হিসেবে কর্মরত আছেন ইবি ছাত্র নাজমুল। তিন বেলা এলাকার মুসল্লীদের বাড়িতে খেয়ে জীবন কাটান তিনি। তার বাবা চুয়াডাঙ্গার জীবননগর উপজেলার নবদুর্গাপুর গ্রামের ইছাহাক আলী মন্ডল কৃষি কাজ করেন। বাবাও বৃদ্ধ ও রোগগ্রস্থ। পরিবারের পক্ষে এতো টাকা যোগাড় করা সম্ভব নয়।

নাজমুল হক জানান, প্রথমে তিনি ইসলামী বিশ্ববিদ্যায়ের চিকিৎসক ডাঃ সিরাজুল ইসলামকে তার চোখের সমস্যার কথা জানালে তিনি আমাকে ঢাকার ইস্পাহানী ইসলামীয়া চক্ষু হাসপাতালে পাঠান। সেখানে ডাঃ মেরি গ্রেস তার চোখ পরীক্ষা করে জানান, ডান চোখের জেলি ও রেটিনা নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। ডাঃ মেরি গ্রেস আরো পরামর্শ দেন দ্রুত উন্নত চিকিৎসা না করলে দুই চোখই চষ্ট হয়ে যাবে। ডাক্তারদের এই কথা শুনে হতাশায় পড়েন নাজমুল হক। এতো টাকা তিনি কোথায় পাবেন এ নিয়ে সর্বক্ষন চিন্তায় থাকেন তিনি।

ইবি ছাত্র নাজমুলের বন্ধু সাজ্জাদুল হক রকি জানান, চিকিৎসকরা তাকে ভারতের চেন্নাইয়ের শংকর নেত্রালয় হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য যেতে পরামর্শ দিয়েছেন। সে জন্য আমরা বন্ধু মহলসহ বিভিন্ন স্থানে টাকা কালেকশন করছি। কিন্তু তেমন সাড়া পাচ্ছি না।

রকি জানান, এ পর্যন্ত যে টাকা পাওয়া গেছে তাতে নাজমুলের চিকিৎসা করা কষ্টসাধ্য। নাজমুলকে চিকিৎসা সহায়তা পাঠাতে চাইলে ইসলামী ব্যাংক, ঝিনাইদহ শাখা, ছাত্র একাউন্ট নং এসএমএসএ-১৫৩৩ এবং ০১৯৪৭-১৭৩৬৮৫ নং বিকাশ একাউন্টে টাকা পাঠাতে অনুরোধ জানানো হয়েছে।

Loading...