বঙ্গবন্ধু প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের দ্বিতীয় দিনের মতো আন্দোলন, ভিসির বাস ভবন ঘেরাও

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি: গোপালগঞ্জে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রী বাসের চাপায় আহত হওয়ার প্রতিবাদে দ্বিতীয় দিনের মতো সড়ক অবরোধ ও বিক্ষোভ করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

andolon

আহত শিক্ষার্থীর সুস্থ্য না হওয়া পর্যন্ত চিকিৎসার ব্যবস্থা করা, ঘাতক বাসের ড্রাইভারের শাস্তির ব্যবস্থা করাসহ ৫ দফা দাবী আদায়ের লক্ষ্যে শিক্ষার্থীরা তাদের আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছে। আন্দোলনের এক পর্যায়ে শিক্ষার্থীরা ভিসির বাস ভবন ঘেরাও করে বিভিন্ন শ্লোগান দেয়।

আন্দোলনরতঃ শিক্ষার্থীরা আজ সোমবার গোপালগঞ্জ-টুঙ্গিপাড়া সড়কে টায়ারে আগুন ধরিয়ে দিয়ে সকাল সাড়ে ৯টার দিকে সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেয়। পরে পুলিশ গিয়ে অবরোধ উঠিয়ে দেয়। পরে আন্দোলন কারীরা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করে।

গতকাল রবিবার সকাল ৯ টার দিকে নিজেদের বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসের চাপায় সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী সুবর্ণা মজুমদার (১৯)মারাত্মক আহত হয়। ওই দিন দুপুরেই তাকে এয়ার এম্বুলেন্সে করে ঢাকায় এ্যপোলো হাসপাতালে চিকিৎসার ব্যবস্থা করে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। সেখানে এখন তার উন্নত চিকিৎসা চলছে।

এ ঘটনার প্রতিবাদে শিক্ষার্থীরা রবিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে গোপালগঞ্জ-টুঙ্গিপাড়া সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ শুরু করে। আজ সোমবারও তা অব্যাহত রয়েছে।

এ ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ বাস ড্রাইভারকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত ও রবিবারের ক্লাস ও পরীক্ষা স্থগিত করে। আজও বিশ্ববিদ্যালয়ে কোন ক্লাস হয়নি।