কাউখালীতে চতুর্থ শ্রেনীর মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষনের অভিযোগে ধর্ষক গ্রেফতার

সৈয়দ বশির আহম্মেদ, কাউখালী প্রতিনিধি: পিরোজপুরের কাউখালীতে চতুর্থ শ্রেণী পড়ুয়া এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে আব্দুল মালেক হাওলাদার (৫৫) নামে একজনকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে।

dhorsok

রবিবার দুপুরে কাঠালিয়া গ্রামে ওই শিশুটি ধর্ষনের শিকার হয়। খবর পেয়ে পুলিশ আজ সোমবার রাতে অভিযান চালিয়ে পার্শবর্তী পারসাতুরিয়াস্থ গ্রামের জামাই বাড়ি থেকে অভিযুক্ত ধর্ষক মালেককে গ্রেফতার করে।

থানা ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, দরিদ্র পরিবারের ওই মাদ্রাসা ছাত্রী বসত বাড়ির পার্শবর্তী কৃষি জমিতে জ্বালানীর জন্য গরুর গোবর সংগ্রহ করতে যায়। এ সময় পাষন্ড মালেক শিশুটিকে ছল চাতুরি করে পার্শবর্তী কলা বাগানে নিয়ে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। এ সময় শিশুটির কান্না কাটির শব্দ পেয়ে বেবি বেগম নামে এক গৃহবধু ঘটনাস্থলে ছুটে আসে। সে ধর্ষক মালেককে লাঠি দিয়ে পেটাতে শুরু করলে মালেক পালিয়ে যায়। পুলিশ খবর পেয়ে শিশুটিকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

কাউখালী থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ মুনিরুজ্জামান সময়ের কণ্ঠস্বরকে জানান, এ ঘটনায় শিশুটির মা বাদি হয়ে কাউখালী থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। অভিযোগের প্রেক্ষিতে অভিযান চালিয়ে মালেককে গ্রেফতার করে অদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। শিশুটির ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য পিরোজপুর জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয়ে পাঠানো হয়েছে।