টানা তৃতীয় দিনের মতো চলছে ইন্টার্ন চিকিৎসকদের কর্মবিরতি, চরম ভোগান্তিতে রোগীরা

সময়ের কণ্ঠস্বর – রোগীর স্বজনদের মারধরের ঘটনায় বগুড়ায় ইন্টার্ন চিকিৎসকের শাস্তির প্রতিবাদে টানা তৃতীয় দিনেও কর্মবিরতি অব্যাহত রেখেছেন দেশের বিভিন্ন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ইন্টার্ন চিকিৎসকরা। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন রোগীরা।

শনিবার থেকে শুরু হওয়া ইন্টার্ন চিকিৎসকদের কর্মবিরতি সোমবারও অব্যাহত রয়েছে। টানা তিন দিন কাজ বন্ধ করে কর্মসূচি পালন করছেন আন্দোলনরত চিকিৎসকরা। এতে চিকিৎসা সেবা ব্যাহত হওয়ায় চরম দুর্ভোগ দেখা দিয়েছে হাসপাতালগুলোতে।

কর্মবিরতিতে রয়েছেন বগুড়া, দিনাজপুর, খুলনা, রাজশাহী, চট্টগ্রাম, ময়মনসিংহ, সিলেট বরিশাল ও রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল এবং সিরাজগঞ্জের নর্থ বেঙ্গল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালসহ দেশের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ইন্টার্ন চিকিৎসকরা।

শিক্ষানবিশ ওই চার চিকিৎকদের বিরুদ্ধে নেওয়া শাস্তি প্রত্যাহার না করা পর্যন্ত আন্দোলন কর্মসূচি অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছেন এসব প্রতিষ্ঠানের ইন্টার্ন চিকিৎসক নেতারা। দাবি আদায়ে তারা আরও কঠোর কর্মসূচি গ্রহণের হুমকিও দিয়েছেন।

inter-doctor

এদিকে দেশের কয়েকটি সরকারী মেডিকেল কলেজের ইন্টার্ন চিকিৎসকদের কর্মবিরতি পালনকে ‘বেআইনি’ বলে উল্লেখ করেছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। তিনি বলেছেন, রোগীকে সেবা দেয়ার দায়িত্বে রয়েছেন চিকিৎসকরা। রোগীর স্বজনরা যদি আহত হয়, লাঞ্ছিত হয় এবং রোগীও মৃত্যুবরণ করেছে এটাতো উপেক্ষা করা সম্ভব না। এর প্রতিবাদে যদি চিকিৎসকরা কর্মবিরতি করে সেটাওতো দুখ:জনক। রোগীকে জিম্মি করেতো কোন চিকিৎসক এভাবে ধর্মঘট করতে পারে না। এটা শুধু বেআইনি-ই নয়, অমানবিক।

উল্লেখ্য, বগুড়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ইন্টার্ন চিকিৎসকরা এক রোগীর স্বজনদের মারধর করায় চারজনের ইন্টার্নশিপ ছয় মাসের জন্য স্থগিত করে কর্তৃপক্ষ। এছাড়া ছয় মাস পরে তাদের চারটি ভিন্ন হসপাতালে ইন্টার্নশিপ করার শাস্তিও দেওয়া হয়। এর প্রতিবাদে শুক্রবার সকাল থেকে কর্মবিরতি পালন করে ওই প্রতিষ্ঠানের ইন্টার্ন চিকিৎসকরা।