রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় সংগীতশিল্পী কালিকাপ্রসাদের শেষকৃত্য

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্ক – আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় কেওড়াতলা মহাশ্মশানে সংগীতশিল্পী কালিকাপ্রসাদ ভট্টাচার্যের শেষকৃত্য সম্পন্ন হবে। এর আগে বিকেল চারটা থেকে সন্ধ্যা ছয়টা পর্যন্ত তার মরদেহ রাখা হবে রবীন্দ্রসদনে। এরই মধ্যেই বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রয়াত এই শিল্পীর ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে। বর্ধমান থেকে মরদেহ এখন কলকাতায় আনা হয়েছে। ময়নাতদন্তের প্রাথমিক প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, মাথায় গুরুতর আঘাতের কারণেই কালিকাপ্রসাদ ভট্টাচার্যের মৃত্যু হয়েছে।

ভারতের বাংলা গানের এ সময়ের অন্যতম জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী, সুরকার ও সংগীত পরিচালক এবং দোহার ব্যান্ডের শিল্পী কালিকাপ্রসাদ ভট্টাচার্য (৪৭) আর নেই। আজ এক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হন তিনি।

পুলিশের বরাত দিয়ে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম জানায়, আজ মঙ্গলবার সকালে গাড়িতে চড়ে কলকাতা থেকে সিউড়িতে অনুষ্ঠানে গান গাওয়ার জন্য যাচ্ছিলেন তিনি। সকাল ১০টা নাগাদ হুগলির গুরাপে ২ নম্বর জাতীয় সড়কে দুর্ঘটনাটি ঘটে। প্রচণ্ড গতিতে ছুটে আসা একটি লরি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে তাঁদের গাড়িকে ধাক্কা মারে। সঙ্গে সঙ্গে গাড়িটি উল্টে পথের পাশে গভীর খাদে পরে যায়। কালিকাপ্রসাদ ছাড়াও এ সময় গাড়িতে আরও ছিলেন দোহারের শিল্পী নিলাদ্রী রায়, অর্ণব রায়, সন্দীপন পাল, সুদীপ্ত চক্রবর্তী ও রাজীব দাস। স্থানীয়দের সাহায্যে আহতদের বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসকেরা কালিকাপ্রসাদকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। আহতদের মধ্যে তিনজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

kalikaprosad

এদিকে বিকেলে স্থানীয় পুলিশ বলেছে, স্থানীয় সময় সকাল নয়টা নাগাদ হুগলির গুড়াপের কাছে রাস্তার ধারে পুঁতে রাখা লোহার বিমে দোহারের গাড়িটি গিয়ে ধাক্কা মারে। এর পর প্রায় ঘষটাতে ঘষটাতে গাড়িটি ৯০ ফুট মতো এগিয়ে যায়। এর পর রাস্তার ডান দিকে ডিভাইডারের মতো রাখা লোহার পাতে কোনো ভাবে গাড়ির সামনের ডান দিকের চাকার টায়ার ফেঁসে যায়। পরে সেই চাকা খুলে গাড়িটি রাস্তার পাশে গভীর খাদে পরে যায়।

কালিকাপ্রসাদ ভট্টাচার্যের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

আজ বিকালে কালিকাপ্রসাদের দেহ নিয়ে আসা হয় তাঁর সন্তোষপুরের বাড়িতে। পথে নবান্নের সামনে তাঁকে শ্রদ্ধা জানান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বিকাল সাড়ে চারটায় তাঁর দেহ রবীন্দ্রসদনে নিয়ে আসা হয়। সাধারণ মানুষের শ্রদ্ধা জ্ঞাপনের জন্য সন্ধ্যা পর্যন্ত কালিকাপ্রসাদের দেহ সেখানে রাখা হয়।

কালিকাপ্রসাদ ভট্টাচার্য সম্প্রতি বাংলাদেশের চলচ্চিত্রে কাজ করেছেন। সদ্য মুক্তি পাওয়া ‘ভুবন মাঝি’ ছবিতে একটি ছাড়া সবকটি গানের সুর, সংগীত পরিচালনা এবং ‘আমি তোমারি নাম গাই, আমার নাম গাও তুমি’ গানে কণ্ঠ দিয়েছেন তিনি। কালিকাপ্রসাদের মৃত্যুতে ছবির পরিচালক ফাখরুল আরেফীন খান এবং ছবির শিল্পীরা গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।