সাইকেল চুরির অভিযোগে মটর শ্রমিককে গণপিটুনি

মোঃ ইউনুস আলী, লালমনিরহাট প্রতিনিধি:

জেলার হাতীবান্ধা উপজেলায় সাইকেল চুরির কথিত অভিযোগে লিমন (২৫) নামে এক মটর শ্রমিককে ফ্লিমি স্টাইলে গণপিটুনি দিয়ে আহত করেছে আবুল খায়ের টোব্যাকো কোম্পানীর লোকজন। বুধবার (৮ মার্চ) সকালে উপজেলার কৃষি ব্যাংক এলাকায় ঘটনাটি ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ঐ এলাকায় আবুল খায়ের টোব্যাকো কোম্পানীর হাতীবান্ধা অফিস থেকে একটি সাইকেল চুরি হয়। সেই অভিযোগ টংভাঙ্গা গ্রামের সেকেন্দার আলীর পুত্র মটর শ্রমিক লিমনকে আটক করেন গণপিটুনি দেন কোম্পানীর লোকজন। এরপরে ঐ শ্রমিককে অফিসের ভিতরে বেঁধে বেদম মারধর করেন ম্যানেজার সিরাজুল ইসলাম, সহকারী ম্যানেজার শাওন ও মাঠকর্মী রহিদুল। এক পর্যায়ে জ্ঞান হারিয়ে ফেলে লিমন। খবর পেয়ে সিঙ্গিমারী ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মনোয়ার হোসেন দুলু ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে আহত শ্রমিককে উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করান।

চুরির অভিযোগে কাউকে ধরে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে তুলে না দিয়ে গণপিটুনি দেওয়ায়, ক্ষোভ প্রকাশ করেন স্থানীয় লোকজন। অনেকেই এটাকে ঐ অফিসের ম্যানেজার সিরাজুল ইসলামের নিজের হাতে আইন তুলে নেওয়া বলেন।

chor-lalmonirhatহাতীবান্ধা হাসপাতালের চিকিৎসক সইদুল ইসলাম জানান, লিমনের শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের দাগ হয়েছে। তার উন্নত চিকিৎসা প্রয়োজন।

সিঙ্গিমারী ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মনোয়ার হোসেন দুলু এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সময়ের কণ্ঠস্বরকে জানান, আহত শ্রমিক উদ্ধার করে হাসাপতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

আবুল খায়ের টোবাকো কোম্পানীর হাতীবান্ধা ম্যানেজার সিরাজুল ইসলাম সময়ের কণ্ঠস্বরকে বলেন, আমরা লিমনকে মারিনি। সে সাইকেল নিয়ে পালানোর সময় জনতাওই ধরে মারধোর করেন। পরে আমি তাকে উদ্ধার করে ঐ সাইকেলসহ স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানকে দিলে তিনি তাকে মেডিকেলে চিকিৎসার জন্য পাঠিয়ে দেন।