আগৈলঝাড়ায় সরকারী কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবসায়ীর দোকান উচ্ছেদ ও ভাংচুরের অভিযোগ

অপূর্ব লাল সরকার, আগৈলঝাড়া (বরিশাল) থেকে : বরিশালের আগৈলঝাড়ায় এক সরকারী কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবসায়ীর দোকান ঘর উচ্ছেদ ও ভাংচুরের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এব্যাপারে ক্ষতিগ্রস্থ ব্যবসায়ী থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

লিখিত অভিযোগ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার মোল্লাপাড়া গ্রামের গোবিন্দ হালদারের পুত্র অমল হালদার দীর্ঘ ১৬ বছর যাবৎ মোল্লাপাড়া বাজারে ক্রয়কৃত নিজস্ব জায়গায় দোকানঘর তুলে গ্যারেজ, রাইসমিল ও তেলের ব্যবসা করে আসছে। বৃহস্পতিবার একই গ্রামের নগেন সরকারের মেয়ে আগৈলঝাড়া উপজেলা উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা সুভাষিনী সরকার ও তার ভাই ননী সরকারের নেতৃত্বে ২৫-৩০ জন বহিরাগত লোক নিয়ে জোরপূর্বক ব্যবসায়ী অমলের দোকানঘর ভাংচুর করে মালামাল ফেলে দেয়। যার ক্ষতির পরিমাণ প্রায় ৫ লক্ষাধিক টাকা। এসময় অমল প্রতিবাদ করতে চাইলে সুভাষিনীর ভাই ননী তার অনুসারী লোকজন নিয়ে ব্যবসায়ী অমলকে জিম্মি করে ভয়ভীতি দেখিয়ে ওই দখলকৃত জায়গায় তড়িঘড়ি ইটের প্রাচীর নির্মাণ করে।

Screenshot_37ক্ষতিগ্রস্থ অমল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করলে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এবিষয়ে ব্যবসায়ী অমল বলেন, স্থানীয় অনিল সরকারের কাছ থেকে আড়াই শতক রাস্তার পাশের জায়গা ক্রয় করে দীর্ঘদিন যাবৎ ব্যবসা পরিচালনা করে আসছি। এব্যাপারে মোল্লাপাড়া ব্যবসায়ী কমিটির সভাপতি মনোতোষ সরকারের কাছে জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিকদের কাছে ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, বিষয়টি সমাধানের জন্য স্থানীয়ভাবে উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে।

এবিষয়ে অভিযুক্ত সরকারী কর্মকর্তা সুভাষিনী সরকারের কাছে জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিকদের জানান, জায়গাটি আমার দাবি করে সেখান থেকে অমলকে সরে যেতে বললেও সে না যাওয়ায় আমার ভাই ননী লোকজন নিয়ে তার দোকানঘর উচ্ছেদ করেছে। তখন ঘটনার সময় আমি উপস্থিত ছিলাম না। এব্যাপারে থানার এএসআই মিন্টু লাল হীরা জানান, থানায় লিখিত অভিযোগ দেয়ার পর আমি ঘটনাস্থলে গিয়ে স্থানীয়দের কাছে ভাংচুরের ঘটনার সত্যতা সম্পর্কে জানতে পেয়েছি।

আগৈলঝাড়ার এক স্কুল ছাত্রীকে কুপিয়েছে প্রতিপক্ষের লোকজন

পূর্বশত্রুতার জের ধরে বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলার এক স্কুল ছাত্রীকে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। গুরুতর আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় শুক্রবার সকালে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়।

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার বিকেলে পূর্বশত্রুতার জের ধরে আগৈলঝাড়ার চাউকাঠী গ্রামের হেলাল শেখের অষ্টম শ্রেণী পড়ুয়া কন্যা সুমাইয়া খানমকে (১৪) কুপিয়ে জখম করেছে একই বাড়ির রহিম শেখের পুত্র টিটন শেখ। আহতদের গৌরনদী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় শুক্রবার সকালে আগৈলঝাড়া থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

সমকালের সহযোগী সম্পাদকের পিতা সত্যরঞ্জন দাশগুপ্তের  মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে চিত্রাঙ্কন মেলা ও ধর্মীয় অনুষ্ঠান
 

দৈনিক সমকালের সহযোগী সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা অজয় দাশগুপ্তের পিতা সাধক পুরুষ, পাকিস্তান আমলে গণতান্ত্রিক সংগ্রামে কারাবরণকারী বিশিষ্ট সমাজসেবী সত্যরঞ্জন দাশগুপ্তের ১৪তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলার গৈলা ইউনিয়নের দাশের বাড়িতে বাসন্তী মন্দির আঙ্গিনায় স্থানীয় বিভিন্ন স্কুলের ৭০জন শিশু শিক্ষার্থীদের নিয়ে চিত্রাঙ্কন মেলা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন প্রয়াতের অপর দুই ছেলে বরিশাল শিক্ষক সমিতির সভাপতি দাশগুপ্ত আশীষ কুমার, বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক নির্বাহী পরিচালক দাশগুপ্ত অসীম কুমার, সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবি এ্যাড. অমিত দাশগুপ্ত, বরিশাল চারুকলা একাডেমীর চারুশিল্পী রনি দাশ, লামিয়া ফাতেহা মীম, শিক্ষক স্বপন কুমার মন্ডল প্রমুখ। বিজয়ী শিক্ষার্থীসহ অংশগ্রহণকারী সকল শিশু শিক্ষার্থীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। পরে সত্যরঞ্জন দাশগুপ্তের ১৪তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে দিনব্যাপী ধর্মীয় অনুষ্ঠান শেষে দুপুরে অতিথিদের জন্য মধ্যাহ্নভোজনের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে সরকারী কর্মকর্তা, মুক্তিযোদ্ধা, সাংবাদিক, জনপ্রতিনিধি, সুধীজন ও সুশীল সমাজের ব্যক্তিবর্গসহ বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার লোকজন উপস্থিত ছিলেন।