ফরিদপুরে অবাধে চলছে রমরমা দেহ ব্যবসা, ধ্বংসের মুখে তরুণ সমাজ

হারুন-অর-রশীদ, ফরিদপুর প্রতিনিধি: ফরিদপুর জেলা সদরে অবাধে চলছে রমরমা দেহ ব্যবসা। আর এই দেহ ব্যবসায় ঝুঁকে পড়ছে তরুণ সমাজ।

অনুসন্ধানে জানা যায়, ফরিদপুরের বিভিন্ন গোপন স্থানে বাণিজ্যিকভাবে গড়ে উঠেছে শক্তিশালী যৌন ব্যবসা। সে সঙ্গে ফরিদপুর সদরে প্রতিনিয়তই বিপুল পরিমাণের যৌনকর্মীদের চাহিদার যোগান দিতে এখানে আশঙ্কাজনক হারে বাড়ছে যৌনকর্মীদের সংখ্যাও।

সরেজমিনে ফরিদপুর জেলা ঘুরে জানা গেছে, এক শ্রেণীর অসাধু ব্যক্তিরা যুবতী নারীদের দিয়ে বিভিন্ন আবাসিক হোটেল ও বাসা-বাড়িতে গড়ে তোলে শক্তিশালী অবৈধ দেহ ব্যবসার নেটওয়ার্ক। ফরিদপুর পৌরসভা ছাড়াও উপজেলার যুবতী নারীদের দৌরাত্ম্যে জিম্মি হয়ে পড়েছে যুব সমাজ।

ফরিদপুর জেলায় এক শ্রেণীর দালালদের খপ্পরে পরে যৌন ব্যবসায় নামতে বাধ্য হয়েছে অসহায় শত শত যুবতী। তারা দীর্ঘদিন যাবত পৌরসভার আবাসিক হোটেল ছাড়াও ঘনবসতি এলাকাগুলিতে দাপটের সাথে ব্যবসা চালিয়ে আসছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

কয়েকজন যৌন কর্মীর সাথে কথা হলে তারা সাংবাদিকদের বলেন, প্রভাবশালী দালালদের খপ্পরে পরে আমরা আজ যৌন ব্যবসায় নামতে বাধ্য হয়েছি। তারা প্রথমে আমাদের জোর করে ব্লাক মেইল করে। পরে সেই ভিডিও ফাঁস করে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে আমাদের এ পথে আনতে বাধ্য করেছে।

স্থানীয় লোকজন আভিযোগ করে বলেন, এই যৌন ব্যাবসায় কার্যকর ব্যবস্থা না নিলে আগামীতে ফরিদপুরে অবৈধ যৌন প্রবণতা মহামারী আকারে ছড়িয়ে পড়বে।