টাঙ্গাইলে সাপের কামড়ে আহত শিক্ষিকার মৃত্যু, কুমুদিনীতে ভ্যাকসিন নেই

অন্তু দাস হৃদয়, টাঙ্গাইল প্রতিনিধি: টাঙ্গাইলের বাসাইলে সাপের কামড়ে আয়েশা আক্তার শিমু (২৭) নামের এক শিক্ষিকার মৃত্যু  হয়েছে।

নিহতের পরিবারের অভিযোগ, মির্জাপুর কুমুদিনী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভ্যাকসিন না থাকার কারণে চিকিৎসার অভাবে তার মৃত্যু হয়।

বুধবার গভীর রাতে কুমুদিনী হাসপাতাল থেকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনা হলে চিকিৎসকরা আয়েশাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহত আয়েশা বাসাইল উপজেলার কাঞ্চনপুর দক্ষিণপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা ও একই এলাকার নুরু মিয়ার মেয়ে। তিনি এবার বিসিএস লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছিলেন বলে জানা গেছে।

নিহতের পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, বুধবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে আয়েশা আক্তার বাড়িতে দাঁড়িয়ে ফোনে কথা বলছিলেন। এ সময় তার আত্মচিৎকারে বাড়ির লোকজন এগিয়ে আসলে আয়েশা জানান তাকে সাপে কামড় দিয়েছে।

পরে তাকে উদ্ধার করে প্রথমে মির্জাপুর কুমুদিনী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে সাপে কাটার ভ্যাকসিন না থাকায় রাত একটার দিকে ঢাকা বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এমন মৃত্যু মেনে নিতে পারছিলেন না নিহতের পরিবার। এমতাবস্থায় আজ বৃহস্পতিবার দুপুর দুইটার দিকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান দিশেহারা পরিবারের সদস্যরা। সেখানেও কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

বাসাইল ইউপি চেয়ারম্যান মামুনুর রশিদ শিক্ষিকার মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। এ ঘটনায় সংশ্লিষ্ট বিদ্যালয় ও এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।