পাবনায় বঙ্গবন্ধু নৌকা বাইচ প্রতিযোগীতায় লগি বৈঠা নিয়ে সংঘর্ষ : আহত-২০

পাবনা প্রতিনিধি:

পাবনার চাটমোহর উপজেলার মূলগ্রাম ইউনিয়নের আটলংকা গ্রামে চিকনাই নদীতে বঙ্গবন্ধু নৌকা বাইচ প্রতিযোগীতায় আয়োজক ও স্থানীয় গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটলে ঐ এলাকা জুড়ে আতংক ছড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষের ঘটনায় নৌকা বাইচের বিভিন্ন এলাকার আগত দর্শক সহ আয়োজক ও স্থানীয় জনসাধারন মিলে অন্তত ২০ জন আহত হয়েছে। প্রাথমিক ভাবে তাদের নাম পরিচয় জানা যায়নি।

জানা গেছে, উপজেলার মূলগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি রাশেদুল ইসলাম বকুলের উদ্যোগে গত কয়েকদিন যাবৎ চলমান বঙ্গবন্ধু নৌকা বাইচ টুর্ণামেন্টের ১ম রাউন্ডের খেলা অনুষ্ঠিত হচ্ছিল। মঙ্গলবার বিকেলে নৌকা বাইচ খেলা চলার মূতুর্তে নদীর ধারে স্কুলের চালে বাসাকে কেন্দ্র করে স্থানীয় কিছু উশৃঙ্খল যুবকদের সাথে আয়োজক কমিটির সদস্যদের সংঘর্ষ বেঁধে যায়। সংঘর্ষ এক সময়ে ব্যাপক আকার ধারন করলে মানুষ আতংকিত হয়ে দৌড়ে পালাতে থাকে।

এক পর্যায়ে আয়োজক কমিটির প্রধান চেয়ারম্যান বকুল লাঞ্চিত হলে সংর্ষের মাত্রা আরো বেড়ে যায়। শুরু হয় লগি বৈঠা নিয়ে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া। পরে চাটমোহর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। ঘটনার পর থেকে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।

এ বিষয়ে চাটমোহর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এস এম আহসান হাবিব জানান, অপ্রিতিকর ঘটনার পরে পুলিশ সেখানে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে এনেছে। বিষয়টি নিয়ে আমাদের কাছে কেউ এখন পর্যন্ত কোন অভিযোগ দেয়নি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

বিষয়টি নিয়ে মূলগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও আয়োজক কমিটির প্রধান রাশেদুল ইসলাম বকুলের সাথে ফোনে একাধিক বার যোগাযোগ করেও তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।