কালকিনিতে ব্লু হোয়েল আক্রান্তে শিক্ষার্থীর মৃত্যুর গুঞ্জন, এলাকায় আতংঙ্ক

এইচ এম মিলন, কালকিনি প্রতিনিধি: মাদারীপুরের কালকিনিতে আবদুল জলিল সরদার (১৮) নামের এক শিক্ষার্থীর ব্লু হোয়েল গেমস খেলায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর গুঞ্জন সৃষ্টি হয়েছে। এতে করে পুরো উপজেলায় মুহুর্তের মধ্যে আতংঙ্ক ছড়িয়ে পরে।

তবে সে ষ্টোক করে মাড়া যায় বলে একাধিক সুত্রে জানা গেছে। সে উপজেলার ডাসার ডিকে আইডিয়াল সৈয়দ আতাহার আলী একাডেমী এ্যান্ড কলেজ থেকে চলতি বছরে এইচএসসি পাশ করেন। আজ বৃহস্পতিবার ভোরে তিনি নিজ বাড়িতে মাড়া যান বলে ভুক্তভোগী পরিবার জানায়।

এলাকা ও পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার ডাসারের ধামুসা গ্রামের পাঞ্জু সরদারের কলেজ পড়ুয়া ছেলে আবদুল জলিল রাত জেগে মোবাইল চালান। কিন্তু ভোরে পরিবারের লোকজন ঘুম ভেঙ্গে দেখেন তার মৃত দেহ বিছানায় পরে আছে। তবে প্রাথমিক অবস্থায় বাড়ির লোকজন ধারনা করেছিলেন সে ব্লু হোয়েল গেমস খেলে মাড়া যায়। এ খবরটি চারিদিকে ছড়িয়ে পড়লে পুরো উপজেলায় আতংঙ্ক সৃষ্টি হয়। কিন্তু পরে ডাসার থানা পুলিশ এসে তদন্ত সাপেক্ষে নিশ্চিত করেন সে ষ্টোক করে মাড়া গেছেন।

এদিকে এ বিষয়টি নিয়ে আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে থানার ওসি মোঃ এমদাদুল হক উপজেলা মাসিক আইন শৃঙ্খলা সভায় অবহিত করে বলেন, জলিল ব্লু হোয়েল খেলে নয় ষ্টোক করে মাড়া গেছেন। এবং তিনি এ বিষয়টি নিয়ে সবাইকে শতর্ক থাকার আহবান জানান।

নিহতের পিতা পাঞ্জু সরদার বলেন, আমার ছেলে ষ্টোক করে মাড়া গেছে।

এ ব্যাপারে ডাসার থানার ওসি এমদাদুল হক বলেন, জলিলের মৃত্যু নিয়ে এলাকায় গুঞ্জন সৃষ্টি হয়েছিল। সে ষ্টোক করে মাড়া গেছে। আতংঙ্ক হবার কিছু নেই।