জামায়াতের ডাকা হরতাল জনগণ প্রত্যাখান করেছে: ওবায়দুল কাদের

কক্সবাজার প্রতিনিধি- সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, জামায়াতের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল প্রত্যাখান করেছে জনগণ। এধরনের কর্মসুচী আহবান করে তারা অংশ গ্রহণ করে না। ঘরে বসে কেউ হিন্দী সিরিয়াল দেখে, আবার কেউ কেউ এসি রুমে বসে বাইরে পুলিশের গতি বিধির খবর নেয়।

বৃহস্পতিবার দুপুরে কক্সবাজারে ৪ কোটি ৩২ লাখ টাকা ব্যয়ে নির্মিতব্য সড়ক ভবনের র্নিমাণ কাজের উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এসব কথা ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেন, হরতাল নামের অধিকার আদায়ের গণতান্ত্রিক হাতিয়ারকে অপপ্রয়োগ করতে করতে অকার্যকর বানিয়ে ফেলেছে কয়েকটি দল।

মন্ত্রী বলেন, খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরওয়ানা দিয়েছে আদালত। এখানে সরকার বা আওয়ামী লীগের কোন সংশ্লিষ্টতা নেই। কাজেই বিএনপি এবং তার সহযোগীরা আদালতের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করছে বলে এটায় প্রমাণিত হয়।

সড়ক ভবন উদ্বোধন শেষে মন্ত্রী সফরসঙ্গীদের নিয়ে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে যান। সেখানে চলমান কার্যক্রম পর্যবেক্ষণ করে আশ্রিতদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন।

এ সময় ওবায়দুল কাদের বলেন, মিয়ানমার থেকে এখনও স্রোতের মতো আসছে রোহিঙ্গারা। এই স্রোতের সঙ্গে ইয়াবা আসছে, অস্ত্র আসছে। এগুলো আমাদের সামাজিক বিপর্যয় ও সাংঘাতিক প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করবে। কাজেই আমরা জাতিসংঘের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি, মিয়ানমারের ওপর চাপ সৃষ্টি করে রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নেওয়ার ব্যবস্থা করুন। আমরা এই বোঝা সহ্য করতে পারছি না। এটি আমাদের অসহ্য হয়ে গেছে।’

সেতুমন্ত্রী বলেন, জাতিসংঘ তাদের অঙ্গীকার রক্ষা করেনি। মিয়ানমারে বসনিয়া ভুলের পুনরাবৃত্তি ঘটে গেছে।’

সময়ের কণ্ঠস্বর/রবি