‘স্বাধীন বাংলাদেশের স্বাধীন রাজধানী ঢাকা এখন মুক্ত, এটাই আমার জীবনের সবচেয়ে বড় ঘটনা’

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ১৯৭১ সালে বাংলাদের স্বাধীনতা অর্জনের ঘটনার কথা স্মরণ করে ভারতের সাবেক রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জী বলেছেন, বাংলাদেশের জন্ম তার সুদীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ঘটনা ছিল। তিনি বলেন, “আমার এখনো মনে পড়ে তখনকার প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী পার্লামেন্টের দুই কক্ষে সংক্ষিপ্ত বিবৃতিতে বলেন, আমি আনন্দের সাথে জানাচ্ছি যে ভারতীয় ও মুক্তি বাহিনীর যৌথ কমান্ডের কাছে পাকিস্তানি বাহিনী আত্মসমর্পণ করেছে। স্বাধীন বাংলাদেশের স্বাধীন রাজধানী ঢাকা এখন মুক্ত। এটাই আমার রাজনৈতিক জীবনের সবচেয়ে বড় ঘটনা।”

নিজের তৃতীয় বই দ্য কোয়ালিশন ইয়ারস এর মোড়ক উন্মোচনের পর ভারতীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়াকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এসব কথা বলেন বর্ষীয়ান বাঙালি রাজনীতিবিদ প্রণব মুখার্জী। সাক্ষাৎকারটি আজ প্রকাশিত হয়েছে। বিশেষ গুরুত্ব বহন করে এমন কোনো ঘটনার ব্যাপারে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, “আমার মন বলছে এটা বাংলাদেশের স্বাধীনতা। ১৯৭১ সালে ১২-১৩ কোটি জনসংখ্যার একটি দেশের জন্ম।” এরপর যৌথ বাহিনীর কাছে পাকিস্তানি বাহিনীর আত্মসমর্পণ সম্পর্কে ইন্দিরা গান্ধীর ঘোষণা নিয়ে স্মৃতিচারণ করেন প্রণব মুখার্জী।

বাংলাদেশের স্বাধীনতার মাধ্যমে দ্বিজাতি তত্ত্ব ব্যর্থ প্রমাণিত হয়েছে বলে মনে করেন কি, এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, “এভাবে বললে বিষয়টির অতি সরলীকরণ করা হবে। দ্বিজাতি তত্ত্ব ঘোষণার সাথে সাথেই এর কার্যকারীতা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছিল। নেহাত ধর্ম কোনো রাষ্ট্রের ভিত্তি হতে পারে না বাংলাদেশের স্বাধীনতা দিয়ে তা ফের প্রমাণিত হয়েছিল। ধর্মের পাশাপাশি ভাষা, সংস্কৃতি, সামাজিক নিয়মকানুন অনেক বিষয় এর সাথে যুক্ত থাকে।”

দীর্ঘদিন কংগ্রেসের রাজনীতিতে যুক্ত প্রণব মুখার্জী পাঁচ বছর ভারতের রাষ্ট্রপতির দায়িত্ব পালন করেছেন। ২০১২ সালের জুলাই মাসে রাষ্ট্রপতি ভবন ছাড়ার সাথে সাথে তিনি রাজনীতি থেকে অবসর নেন। সম্প্রতি প্রকাশিত ‘দ্য কোয়ালিশন ইয়ারস’ নিয়ে সংবাদের শিরোনাম হয়েছেন তিনি।

এই বইয়ের এক জায়গায় তিনি লিখেছেন, কংগ্রেস সভাপতি সোনিয়া গান্ধীর সাথে বৈঠকের পর তার মনে হয়েছিল প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব তাকে নিতে হতে পারে। কিন্তু পরবর্তীতে মনমোহন সিংকে প্রধানমন্ত্রী বানানো হয়। এ নিয়ে তার মধ্যে ক্ষণিকের জন্য হলেও আক্ষেপ তৈরি হয়েছিল সেকথাও প্রকাশ করেছেন তিনি। বইটির মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে এই প্রসঙ্গ টেনেই মনমোহন সিং বলেন, প্রধানমন্ত্রীর পদ প্রণবের প্রাপ্য ছিল।