হবিগঞ্জ সদর উপজেলা ছাত্রদল নেতা কামালের লাশ আশুগঞ্জে উদ্ধার

মঈনুল হাসান রতন, হবিগঞ্জ প্রতিনিধি: হবিগঞ্জ সদর উপজেলা ছাত্রদলের যুগ্ম আহ্বায়ক কামাল আহমেদের রক্তাক্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। গত সোমবার গভীর রাতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার আশুগঞ্জ উপজেলার বাহাদুরপুর-তালশহর আঞ্চলিক সড়কের উপর থেকে নিহত ছাত্রদল নেতা কামালের লাশ উদ্ধার করা হয়। কামাল হবিগঞ্জ সদর উপজেলার নিজামপুর ইউনিয়নের সুয়ারগাঁও গ্রামের আব্দুল হাই মিয়ার পুত্র।

আশুগঞ্জ থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. মেজবাহ উদ্দিন সময়ের কণ্ঠস্বরকে জানান, সোমবার রাতে একদল টহল পুলিশ বাহাদুরপুর-তালশহর আঞ্চলিক সড়ক দিয়ে যাওয়ার সময় সড়কের উপরে এক যুবকের লাশ পড়ে থাকতে দেখতে পায়। পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে। এ সময় তার পকেটে থাকা একটি কাগজের মাধ্যমে তার নাম পরিচয় পাওয়া যায়।

তিনি আরো জানান, নিহতের বুকের দু’পাশে ৩টি আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তবে সেটি ছুরি নাকি বুলেটের আঘাত তা এখনো নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না। লাশের ময়নাতদন্তের জন্য ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পাওয়া গেলেই হত্যাকান্ডের প্রকৃত কারণ জানা যাবে।

এদিকে ১৪ই নভেম্বর সন্ধ্যায় ময়না তদন্ত শেষে গ্রামের বাড়িতে তার লাশ নিয়া আসা হয় । রাত্র সাড়ে ৯ টায় জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়। তার মৃত্যুর খবর শুনে জেলা ছাত্রদল ও সদর থানার ছাত্রদল নেতাকর্মীরা কামালের বাড়িতে ছুটে যান।

 

এমপি কেয়া চৌধুরী’র উপর হামলাকারীদের গ্রেফতারের দাবিতে বাহুবলে অবস্থান ধর্মঘট কাল

 

হবিগঞ্জ জেলার বাহুবলে কেয়া চৌধুরী এমপি’র উপর হামলাকারীদের গ্রেফতার দাবিতে আগামীকাল বৃহস্পতিবার (১৬ নভেম্বর) সকাল ১০টায় উপজেলা পরিষদের সামনে অবস্থান ধর্মঘট ডাকা হয়েছে। সন্ত্রাস-দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির ব্যানারে এ কর্মসূচি পালনের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৪ নভেম্বর) সন্ধ্যায় কমিটির জরুরী সভায় এ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে। কমিটির সভাপতি ডা. আবুল হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় অন্যান্যের মাঝে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামীলীগ সহ-সভাপতি আসকার আলী, উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক ও ইউপি চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান চৌধুরী টেনু, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক বশির আহমেদ, উপজেলা আওয়ামীলীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক ফরিদ তালুকদার, উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক অলিউর রহমান অলি, যুগ্ম সম্পাদক মুশাহিদ আলী, উপজেলা কৃষকলীগের সহ-সভাপতি নূরুল ইসলাম নূর, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ফারুকুর রশিদ, মুক্তিযোদ্ধা নূর মিয়া, মুক্তিযোদ্ধা ইসহাক মিয়া, মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন, মুক্তিযোদ্ধা রাজা মিয়া, মুক্তিযোদ্ধা এনামুল হক, মুক্তিযোদ্ধা আমির হোসেন, মুক্তিযোদ্ধা হাবিবউল্লা (মেম্বার), মুক্তিযোদ্ধা শেখ ফিরোজ মিয়া, ছুরুক মিয়া তালুকদার মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের আহ্বায়ক শামীম আহমেদ, যুগ্ম আহ্বায়ক শামীনুর রহমান প্রমুখ।

সভা শেষে সন্ত্রাস-দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মুছাব্বির শাহীন জানান, আগামীকাল বৃহস্পতিবার উপজেলা পরিষদের সামনে অনির্দিষ্টকালের অবস্থান ধর্মঘট পালনের সিদ্ধান্ত হয়েছে। ধর্মঘটে উপজেলার সবকটি ইউনিয়ন থেকে ব্যাপক লোক সমাগম ঘটনোর প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। ক্রমে এ আন্দোলন তীব্র থেকে তীব্রতর করা হবে।গত শুক্রবার (১০ নভেম্বর) বিকেলে বাহুবল উপজেলার মিরপুর বাজার সংলগ্ন বেদে পল্লীতে অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে সরকারি সহায়তা বিতরণকালে হবিগঞ্জ-সিলেটের দায়িত্বপ্রাপ্ত সংরক্ষিত মহিলা সংসদ সদস্য আমাতুল কিবরিয়া কেয়া চৌধুরী সন্ত্রাসী হামলা শিকার হন। এরপর থেকে বাহুবল, নবীগঞ্জ ও শ্রীমঙ্গল উপজেলার বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভ অব্যাহত হয়েছে। ঘটনার ৪ দিন অতিবাহিত হলেও প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোন পদক্ষেপ নেয়া হয়নি।