পিরোজপুরে ফেরি-লাইটার সংঘর্ষ, একটি বাস ও দুইটি ট্রাক নদীতে

সৈয়দ বশির আহম্মেদ, কাউখালী প্রতিনিধি– পিরোজপুর বরিশাল সড়কের পিরোজপুরের কাউখালীর কঁচা নদীতে বেকুটিয়া চলাচলকারী ফেরীকে একটি লাইটার জাহাজ ধাক্কা দিলে তার একাংশ ডুবেগেছে। এসময় ফেরীতে থাকা একটি বাস ও তিনটি ট্রাক নদীতে পড়ে গেছে।

মঙ্গলবার রাত ১টার দিকে এ দূর্ঘটনা ঘটে। তবে এতে কোন প্রান হানীর কোন খবর পাওয়া যায়নি। পিরোজপুর সড়ক বিভাগের উপ সহকারী ও ফেরীর দায়িত্বে থাকা আঃ হামিদ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আঃ হামিদ জানান, রাত সাড়ে ১২টার দিকে ইউটিলিটি টাইপ-৩৬ ফেরিটি বেনাপোল-কুয়াকাটা রুটে চলাচলকারী সেভেন ষ্টার পরিবহন ও আরো ৮ টি ট্রাক নিয়ে পিরোজপুরের কুমিরমারা প্রান্ত থেকে ছেড়ে যায়। মাঝ নদীতে ফেরীটিকে একটি লাইটারেজ জাহাজ ধাক্কা দেয়। ধাক্কা দেয়া কালে জাহাজে কোন বাতি ছিলনা।

কাউখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ মনিরুজ্জামান জানান, ফেরীটি কঁচা নদীর মাঝ বরাবর গেলে বাগেরহাটের দিক থেকে আসা একটি লাইটারেজ জাহাজ রাত ১টার দিকে ফেরীটিকে ধাক্কাদেয়। এতে ফেরীর একটি ইঞ্জিন বিকল হয়ে যায়। এসময় ফেরীতে থাকা অন্য ইঞ্জিন দিয়ে ফেরীটি চালিয়ে তা পূর্ব উত্তর কিনারে থাকা বেকুটিয়া এলাকার চড়ে উঠিয়ে দেয়।

ওসি জানান, দূর্ঘটনার খবর পেয়ে দমকল বিভাগের কর্মী, পিরোজপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জিএম আবুল কালাম আজাদ, স্বরুপকাঠী সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার কাজী শানেওয়াজ ও পিরোজপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ মাসুমুর রহমান বিশ্বাসসহ পুলিশ সদস্যরা উদ্ধার কাজে অংশ নেয়।

তিনি বলেন, ফেরীতে থাকা যাত্রীদের কোন প্রানহানী ঘটেনি। ফেরীতে ট্রাকে ৫২টির মত গরু ছিল তা কিনারে আনা হয়েছে।

কাউখালী দমকল বিভাগের ইনচার্জ আবুবক্কর সিদ্দিক জানান, জাহাজের ধাক্কায় ফেরীর একাংশ ফেটে পানি ঢুকেছে। এসময় ফেরীতে থাকা একটি বাস ও তিনটি ট্রাক নদীতে পড়ে গেছে বলে জানান তিনি। চালক দ্রুত গতিতে ফেরীটি চালিয়ে নিয়ে চরে উঠিয়ে দেয়। একারনে বড় কোন দূর্ঘটনার হাত থেকে ফেরীর যাত্রীরা রক্ষা পেয়েছে।

কাউখালীর চিরাপাড়া ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মোঃ ইউনুস হোসেন জানান, ফেরীতে থাকা ট্রাকে গ্যাস সিলিন্ডার ছিল তা অনেক ভেসে গেছে।

কাউখালী থানার ওসি মনিরুজ্জামান জানান, ফেরীকে ধাক্কা দেয়া লাইটারেজ জাহাজটি পালিয়ে গেছে। সেটিকে আটকের চেষ্টা চলছে।

পিরোজপুর সড়ক বিভাগের নির্বাহী প্রকেীশলী মোঃ নজরুল ইসলাম জানান, ক্রেনদিয়ে ফেরীতে থাকা ট্রাকগুলো উদ্ধার করার চেষ্টা চলছে। এরপর তিনি বলেন, ব্যস্ততম পিরোজপুর বরিশাল সড়কে বেকুটিয়ায় দুটি ফেরীদিয়ে যান বাহন পার করা হতো। একটি ফেরী দূর্ঘটনা কবলিত হওয়ায় পিরোজপুরের চরখালী ঘাট থেকে আরেকটি ফেরী আনা হয়েছে যানচলাচল স্বাভাবিক রাখার জন্য।

বরিশাল ফেরী বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মোহা. শামিমুল হক জানান, রাত আনুমানিক ১ টার দিকে পিরোজপুরের কুমিারমারা ঘাট থেকে ফেরীটি ১ টি বাস, ৫টি ট্রাক ও ৩টি পিকাপ ভ্যান নিয়ে বেকুটিয়া ঘাটে যাচ্ছিল। এ সময় নদীর মাঝে একটি লাইটার জাহাজ ফেরীটিকে ধাক্কা দেয়। এতে করে ফেরীর ব্যাক প্লেট ফেটে যায়। তখন ফেরীর চালক ফেরীটিকে নদীর বেকুটিয়ার পাড়ের একটি চড়ে তুলে দেয়। ফাটলের অংশ থেকে ফেরীতে পানি উঠার কারণে একটি বাস ও ২ টি ট্রাক ফেরী থেকে পড়ে নদীর পানিতে তলিয়ে যায়।

বরিশাল ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সহকারী পরিচালক মো: মতিউর রহমান জানান, খবর পেয়েই বরিশাল থেকে পিরোজপুরের এসে দুর্ঘটনার শিকার ফেরীটি ও ফেরীতে থাকা যানবাহন উদ্ধার চেষ্টা করছে।

সময়ের কণ্ঠস্বর/রবি