পাপনের বিরুদ্ধে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ: অবশেষে মুখ খুলল সেই নাবালিকা

বিনোদন ডেস্ক- জোর করে চুমু খাওয়ার অভিযোগে বলিউডের জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী পাপনের বিরুদ্ধে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ দায়ের হওয়ার পর অবশেষে মুখ খুলল সেই নাবালিকা।

সম্প্রতি এক রিয়্যালিটি শো-এর নাবালিকা প্রতিযোগীকে চুমু খাওয়ার অভিযোগ ওঠে গায়ক পাপনের উপর। পুরো ঘটনাটির সময়েই ফেসবুক লাইভ চলছিল। ফলে সোশ্যাল মিডিয়াতে পুরো ফুটেজটাই ভাইরাল হয়ে যায়।

ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই পসকো আইনে তাঁর বিরুদ্ধে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ দায়ের করেছেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী রুনা ভায়ন।

রুনা লিখিত অভিযোগে জানিয়েছেন, একটি রিয়ালিটি শো-এর বিচারক পাপন হোলির সেলিব্রেশনে এক প্রতিযোগিনীর গালে রং মাখিয়ে দেওয়ার পর তাকে জোর করে চুমু খান। শিশুর যৌন নির্যাতন প্রতিরোধ (পক্সো) আইনের সাত এবং আট নম্বর ধারায় গোটা ঘটনার তদন্ত দাবি করেছেন তিনি।

অভিযোগে রুনা লিখেছেন, ‘‘এক নাবালিকার প্রতি পাপন মোহান্তর ব্যবহার দেখে আমি স্তম্ভিত। ভিডিওতে স্পষ্ট দেখা গিয়েছে, ওই নাবালিকার মুখে রং মাখিয়ে দেওয়ার পর তাকে চুমু খেতে যান তিনি। নাবালিকার ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোর করে তাকে চুমু খান পাপন। গোটা দেশে রিয়ালিটি শো-এ যে নাবালিকারা অংশ নিচ্ছে, তাদের সুরক্ষার ব্যাপারে আমি চিন্তিত।’

এদিকে নাবালিকা প্রতিযোগীকে চুমু খেয়ে পাপনকে ঘিরে বিতর্ক শুরু হওয়ায় এবার ইউটিউবে একটি ভিডিওর মাধ্যমে মুখ খুলল সেই নাবালিকা প্রতিযোগী। সেই ভিডিওতে প্রতিযোগী সাফ জানিয়ে দেয়, ‘পাপন স্যর’ খারাপ কিছু করেননি।

রিয়্যালিটি শো-এর হোলির ইভেন্টে এই ঘটনাটি ঘটে। মেয়েটি জানায়, ‘‘হোলির জন্য আমাদের স্পেশাল শ্যুট হচ্ছিল। শ্যুটের পরে আমরা অভিভাবকদের সঙ্গে নিয়ে পাপন স্যরের কাছে গিয়েছিলাম। তখন আমরা সবাই ফেসবুকে লাইভ এসেছিলাম আর সবাই খুব আনন্দ করছিলাম। সবাই দেখেছেন, পাপন স্যর খারাপ কিছুই করেননি। একটা বাচ্চাকে যেমন ভাবে চুমু খায়, পাপন স্যরও তেমনই করেছিলেন। আমার মা-বাবাও এমন ভাবেই চুমু খায়। দয়া করে এর কোনও খারাপ মানে বের করবেন না।’’

ফেসবুক লাইভটি নিয়ে বিতর্ক শুরু হওয়ার পরে পাপন ও তাঁর আইনজীবীও জানান, কোনও অসৎ উদ্দেশ্য নিয়ে পাপন চুমু খাননি।

সময়ের কণ্ঠস্বর/রবি

Leave a Reply