SOMOYERKONTHOSOR

জনপ্রিয়তা বাড়লে খালেদাকে জেলে রেখেই নির্বাচনে আসুন: তোফায়েল

এস আই মুকুল, ভোলা প্রতিনিধি:খালেদা জিয়া জেলে থাকলে যদি তার জনপ্রিয়তা বাড়ে, তাহলে তাকে জেলে রেখেই বিএনপিকে নির্বাচনে আসার পরামর্শ দিলেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ।


ভোলায় জাটকা সংরণ সপ্তাহের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাণিজ্যমন্ত্রী একথা বলেন। এসময় তিনি ন্যাশনাল সার্ভিসের এক হাজার ৩৮৫ জন প্রশিণার্থীদের মাঝে সনদও বিতরণ করেন।
সম্প্রতি মওদুদ আহমদসহ বিএনপির কয়েকজন শীর্ষ নেতা বলেছেন, জেলে থাকলে খালেদা জিয়ার জনপ্রিয়তা বাড়ে।

এই বক্তব্যের সমালোচনা করে তোফায়েল আহমেদ বলেন, ‘জেলে থাকলে যদি খালেদার জনপ্রিয়তা বাড়ে, তাহলে আপনারা বেল মুভ করবেন না। তাকে জেলে রেখেই নির্বাচন করুন। তাহলে নির্বাচনে আপনারা জিতে যাবেন।’

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি নেতারা দাবি করেন, খালেদা জিয়া জেলে থাকলে আওয়ামী লীগের দৈনিক ১০ লাখ করে ভোট কমবে। যদি তাই হয় তাহলে বিএনপির উচিত তাকে জেলে রেখে দেয়া। কিন্তু আমরা আইনে বিশ্বাস করি, আইন চলবে আইনের গতিতে।’

গত জাতীয় নির্বাচনে বিএনপি অংশ না নিয়ে সংসদেও নেই বিরোধী দলেও নেই মন্তব্য করে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বর্তমান মতাসীন দলের অধীনেই নির্বাচন হবে। সংবিধান অনুযায়ী জাতীয় সংসদ নির্বাচন হবে অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপে। সে নির্বাচনে কেউ যদি না আসে তাহলে আমাদের কিছু করার নেই। যারা নির্বাচন করবেন না তারাই তিগ্রস্ত হবেন।’

তোফায়েল বলেন, ‘বিএনপির শাসনামলে একটা উপ-নির্বাচনও তারা ঠিকমত করতে দেয়নি। কিন্তু আমরা যখন মতায় ছিলাম বিএনপি নেতা মওদুদ আহমদ বগুড়া থেকে উপ-নির্বাচনে জয় লাভ করেছেন। তার বাড়ি বগুড়া না থাকা সত্ত্বেও আমরা তাকে বাধা দিইনি।’

সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মৃধা মো. মোজাহিদুল ইসলামরে সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে জেলা প্রশাসক মো. সেলিম উদ্দিন, উপজেলা চেয়ারম্যান মো. মোশারেফ হোসেন, ভোলা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মো. জাহাঙ্গীর উদ্দিন আহমেদ, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক জহুরুল ইসলাম নকিব, সাংগঠনিক সম্পাদক মইনুল হোসেন বিপ্লব, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মো. ইউনুছ, উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা মো. আসাদুজ্জামানসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

সময়ের কণ্ঠস্বর/ফয়সাল