শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ: মোদি

সময়ের কণ্ঠস্বর- ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশের অব্যাহত অগ্রযাত্রার ভূয়সী প্রশংসা করেছেন। সোমবার বিকেলে নয়াদিল্লি সফররত সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের নেতৃত্বে ১৯ সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল নরেন্দ্র মোদির সাথে সাক্ষাৎ করতে গেলে তিনি একথা বলেন।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে মোদি বলেছেন, তিনি যেভাবে বাংলাদেশকে গড়তে চেয়েছিলেন, আজ তার কন্যা সেই পথে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন।

ভারত সফররত আওয়ামী লীগের প্রতিনিধি দলের সদস্যরা সোমবার বিকালে নয়াদিল্লিতে মোদির বাসভবনে সাক্ষাত করতে গেলে ভারতীয় নেতা এসব কথা বলেন। সাক্ষাতে নেতৃত্ব দেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগের ৫ সিনিয়র সদস্যের সাথে নরেন্দ্র মোদি প্রায় ৪০ মিনিট মত বিনিময় করেন। প্রতিনিধি দলের সদস্যরা মহান মুক্তিযুদ্ধ এবং পরবর্তী সকল সময়ে সহযোগিতার জন্যে ভারত সরকার এবং জনগণের নিকট কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

প্রতিনিধিদলের অন্য ৪ সদস্য হলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য পীযুষ কান্তি ভট্টাচার্য, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, আব্দুর রহমান ও জাহাঙ্গীর কবির নানক।

বৈঠকে ভারতের পক্ষেও অত্যন্ত উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধি দল ছিলেন। জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভাল, পররাষ্ট্রসচিব বিজয় কেশব গোখলে এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

আওয়ামী লীগের প্রতিনিধি দলের সদস্য ছাড়াও ভারতে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার সৈয়দ মুয়াজ্জেম আলীও বৈঠকে যোগ দেন।

সরকারি সূত্রে জানা গেছে, বৈঠকে বাংলাদেশের বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি, রোহঙ্গা সংকট এবং নিরাপত্তা ইস্যুতে আলোচনা হয়। এ সময় মোদি বলেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আজ বাংলাদেশের কত উন্নতি হচ্ছে। সেই জায়গায় পাকিস্তানের অধঃপতন হয়েছে।

নরেন্দ্র মোদি সাম্প্রতিক রোহিঙ্গা সমস্যা মোকাবিলায় বাংলাদেশের প্রশংসা করেন এবং রোহিঙ্গা সমস্যার স্থায়ী সমাধানে ভারত শীঘ্রই উদ্যোগ নেবে বলে তিনি প্রতিনিধি দলকে জানান।

তিনি বলেন, অতীতের মতো সব সময় বাংলাদেশের সকল দুঃসময়ে ভারত বাংলাদেশের পাশে থাকবে। বাংলাদেশের প্রতিনিধিরা তিস্তা সমস্যার কথা তুলে ধরলে তিনি অন্য সকল সমস্যার মতো তিস্তা সমস্যারও অচিরেই সমাধান করা হবে।

Leave a Reply