ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে শেষ কর্মদিবসে রাজধানী ছাড়ছে লাখো মানুষ

মো. হৃদয় খান, স্টাফ রিপোর্টার: পরিবারের সঙ্গে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে শেষ কর্মদিবসে রাজধানী ছাড়ছে লাখ লাখ মানুষ। বৃহস্পতিবার ভোর থেকে ট্রেন, বাস, লঞ্চ ছাড়াও প্রাইভেটকার, ট্রাক এমনকি শত শত মোটরসাইকেলে ঢাকা ছাড়ছেন তারা। নাড়ির টানে নগরবাসীর এই ঘরে ফেরায় কার্যত ফাঁকা হয়ে যাচ্ছে রাজধানী। বৃহস্পতিবার ভোর থেকে বাড়ি ফিরতে ঘরমুখো মানুষের স্রোত দেখা যাচ্ছে বাস এবং রেল স্টেশনে। বুধবার থেকেই শুরু হয়েছে রেলের বিশেষ সার্ভিস। আজও রাজধানীর কমলাপুর স্টেশনে ঘরে ফেরা মানুষের ঢল। ট্রেন ছাড়ছে শিডিউল অনুযায়ী নির্ধারিত সময়ে। তবে সিট না পেয়ে অনেককে ঘরে ফিরতে ট্রেনের ছাদেও অবস্থান নিতে দেখা গেছে।

রাজধানীর কমলাপুর রেলস্টেশনে বিভিন্ন প্ল্যাটফর্মে দাঁড়ানো ট্রেনগুলোর ছাদে বসে বা দাঁড়িয়ে অসংখ্য যাত্রী। টিকিট না থাকায়, ভেতরে আসন না পাওয়ায় তাদের এমন ঝুঁকিপূর্ণ ঈদ যাত্রা।

অন্যদিকে, ভোর থেকে রাজধানীর গাবতলী, কল্যাণপুর, শ্যামলী, মহাখালী ও সায়েদাবাদ বাস কাউন্টারগুলোতে নিজ নিজ গন্তব্যের বাসের জন্য অপেক্ষা করতে দেখা গেছে বহু মানুষকে। তবে বাসের ক্ষেত্রে ঘরমুখো মানুষের একটু বিড়ম্বনায় পড়তে হচ্ছে। কারণ সময়মত ট্রেন ছেড়ে গেলেও দূরপাল্লার বাস ছাড়ছে নির্ধারিত সময়ের পর। তবে এত কষ্টের পরও স্বজনদের সঙ্গে ঈদ উদযাপন বড় কাছে পাওয়া হিসেবে দেখছেন তারা।

যানজট, অতিরিক্ত ভাড়া, জনস্রোত, দুর্ঘটনা, যানবাহনের সংকট, ছাদে চড়ার ঝুঁকি—সব কিছু ছাপিয়ে, সব ভয় জয় করে ঈদ যাত্রা শেষ পর্যায়ে।