‘দাবাং’ আমার কেরিয়ার শেষ করে দিয়েছিল’ মাহি

বিনোদন ডেস্ক: তথাকথিত নায়িকা নন। বরং একটু অন্য ধারার চরিত্রেই তাঁকে চেনে বলিউডি দর্শক। তিনি মাহি গিল। ২০০৯-এ মুক্তিপ্রাপ্ত ‘দেব ডি’-তে অভিনয়ের জন্য যেমন পুরস্কার পেয়েছিলেন, তেমনই এসেছিল দর্শকদের প্রশংসাও। সলমন খানের ‘দাবাং’-এও মাহির অভিনয় দেখেছেন দর্শক। কিন্তু কী এমন হয়েছিল, যাতে ওই ছবি মাহির কেরিয়ার শেষ করে দিতে চলেছিল? এতদিনে তা নিয়ে প্রকাশ্যে মুখ খুললেন অভিনেত্রী।

‘দেব ডি’-র পর ইন্ডাস্ট্রিতে মাহির প্রতিভা ধীরে ধীরে স্বীকৃতি পেতে শুরু করেছিল। সেই মতো ‘দাবাং’-এও সুযোগ পেয়েছিলেন তিনি। ওই ছবিতে আরবাজ খানের বিপরীতে দেখা গিয়েছিল তাঁকে। সেই চরিত্রই নাকি তাঁর কেরিয়ার শেষ করে দেওয়ার জন্য যথেষ্ট ছিল বলে দাবি মাহির।

সম্প্রতি পিটিআইকে দেওয়া সাক্ষাত্কারে মাহি বলেন, ‘ডেব ডির পর আমি প্রচুর প্রশংসা পাচ্ছিলাম। অনেক ছবির অফার আসছিল।

সে সময় দাবাং করেছিলাম। সেটাই ব্যাক ফায়ার করেছিল। তার পর থেকেই প্রযোজকরা আমাকে ছোট ছোট চরিত্র অফার করছিল। খুব খারাপ লেগেছিল আমার। কিন্তু কী করতে হবে জানতাম না।’’

ঠিক সে সময় যেন কেরিয়ার প্রায় থেমে গিয়েছিল মাহির। তখন পরিচালক তিগমাংশু ধুলিয়া তাঁকে ‘সাহেব বিবি অউর গ্যাংস্টার’-এর ফ্র্যাঞ্চাইজিতে সুযোগ দিয়েছিলেন। মাহির দাবি, ‘ওই ফ্র্যাঞ্চাইজিতে কাজ করে আমি গর্বিত। প্রথমে আমরা ভাবতেই পারিনি অত হিট হবে।’’ এর পর থেকেই কেরিগ্রাফ ফের বদলাতে থাকে তাঁর। ‘দাবাং’-এর নেগেটিভিটি কাটিয়ে উঠতে পেরেছিলেন বলে জানিয়েছেন মাহি।

sharing-is-caring!
Share on facebook
Share with others
Share on google
Share On Google+
Share on twitter
Share On Twitter
You May Also Like:
  • Recent Updates
  • Top Views News