মেসিবিহীন আর্জেন্টিনার মান বাঁচাতে পারবে তো ইকার্দি-দিবালা?

স্পোর্টস্ আপডেট ডেস্ক :: ফুটবল সৌন্দর্যের মহারণে মুখোমুখি হবে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা। চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীদের বিপক্ষে মর্যাদার লড়াইয়ে এতটুকু ছাড় দিতে রাজি নন লিওনেল স্কালোনি। সে কারণে একাদশে ব্যাপক পরিবর্তন এনে পূর্ণশক্তির দল নিয়েই সেলেকাওদের মোকাবেলা করতে যাচ্ছেন ভারপ্রাপ্ত আলবিসেলেস্তে কোচ।

ম্যাচের একদিন আগে সোমবার সংবাদ সম্মেলনে স্কালোনি জানিয়েছেন, কারা শুরু থেকেই খেলবেন ব্রাজিলের বিপক্ষে। ইন্টার মিলানের অধিনায়ক ও স্ট্রাইকার মাউরো ইকার্দির খেলা নিশ্চিত। দলের ‘তুরুপের তাস’ জুভেন্তাস তারকা পাওলো দিবালা জায়গা ধরে রেখেছেন মূল একাদশে।

ইরাকের বিপক্ষে সবশেষ প্রীতি ম্যাচে ৪-০ গোলের বড় জয় পেয়েছিল আর্জেন্টিনা। সে ম্যাচে অপেক্ষাকৃত দুর্বল শক্তির স্কোয়াড মাঠে নামিয়েছিলেন স্কালোনি। ওই ম্যাচের মূল একাদশে থাকা মাত্র চারজন ফুটবলারের ব্রাজিলের বিপক্ষেও থাকছেন সেরা একাদশে। তারা হলেন- গোলরক্ষক সার্জিও রোমেরো, সেন্টার-ব্যাক জার্মান পেজ্জেয়া, মিডফিল্ডার লেয়ান্দ্রো পারেদেস ও ফরোয়ার্ড দিবালা।

তবে সংখ্যাটা বেড়ে হতে পারে পাঁচ। ইরাকের বিপক্ষে লাউতারো মার্তিনেজ আর্জেন্টিনার জার্সিতে অভিষেক গোল পেলেও দলে নিজের স্থান এখনও পাকা করতে পারেননি। ইকার্দি-দিবালার সঙ্গে আক্রমণভাগে মার্তিনেজ না কি অ্যাঙ্গেল কোরেয়াকে খেলাবেন, সেটা নিয়েই কিছুটা দোটানায় আছেন স্কালোনি। এছাড়া বাকি ছয়জনকে চূড়ান্ত করে ফেলেছেন তিনি।

একাদশে ফিরেছেন ম্যানচেস্টার সিটির ডিফেন্ডার নিকোলাস ওতামেন্দি। নেইমার-গ্যাব্রিয়েল জেসুস-ফিলিপ কৌতিনহোদের নিয়ে গড়া ব্রাজিলের দুর্ধর্ষ আক্রমণভাগ সামলানোর নেতৃত্ব দিতে হবে তাকে। সঙ্গে থাকবেন লেফট-ব্যাক নিকোলাস তালিয়াফিকো, রাইট-ব্যাক রেনজো সারাভিয়া আর পেজ্জেয়া।

আর মাঝমাঠ নিয়ন্ত্রণ করা ও আক্রমণভাগকে বল বানিয়ে দেওয়ার গুরুদায়িত্ব থাকবে পারেদেস, রদ্রিগো বাত্তাগলিয়া ও জিওভানি লো সেলসোর কাঁধে।

জেদ্দার কিং আবদুল্লাহ স্পোর্টস সিটি স্টেডিয়ামে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার ম্যাচ শুরু মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় রাত ১২টায়।

আর্জেন্টিনার একাদশ : সার্জিও রোমেরো; নিকোলাস তালিয়াফিকো, জার্মান পেজ্জেয়া, নিকোলাস ওতামেন্দি, রেনজো সারাভিয়া; লেয়ান্দ্রো পারেদেস, রদ্রিগো বাত্তাগলিয়া, জিওভানি লো সেলসো; পাওলো দিবালা, মাউরো ইকার্দি ও লাউতারো মার্তিনেজ/অ্যাঙ্গেল কোরেয়া।