বাঞ্ছারামপুরে ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক সহ গ্রেফতার ১৬

৯:২৫ অপরাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ২৫, ২০১৮ চট্টগ্রাম

বাঞ্ছারামপুর (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি :: ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুর উপজেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পদক মোঃ ওমর ফারুক সহ ১৬ নেতাকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ। এঘটনায় বাঞ্ছারামপুর মডেল থানার এসআই মোঃ তাজুল ইসলাম ভূইয়া বাদী হয়ে ১৬ জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন। বৃহস্পতিবার সকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়া আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

গ্রেফতাকৃতরা হলেন-বাঞ্ছারামপুর উপজেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পদক মোঃ ওমর ফারুক, সহ-সভাপতি মীর মোশারফ হোসেন, সহ-সভপতি সোহেল আরমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ্ আল মামুন, বাঞ্ছারামপুর সরকারি কলেজ ছাত্রদলের প্রস্তাবিত কমিটির সভাপতি আব্দুল্লাহ্, পৌর ছাত্রদল নেতা আনোয়ার হোসেন, ইব্রাহিম, রূপসদী ইউনিয়ন ছাত্রদলের সভাপতি শিপন আহমেদ, বিপ্লব, ইব্রাহিম, ফাহাদ প্রমুখ। এঘটনার পর থেকে বাঞ্ছারামপুর উপজেলা বিএনপি ও সকল সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের মাঝে গ্রেফতার আতঙ্ক বিরাজ করছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসীর সূত্রে জানা যায়, গত বুধবার রাত ৭টার দিকে বাঞ্ছারামপুর পৌর এলাকার ভিটি ঝগড়ারচর গ্রামের সোহেল মিয়ার বাড়িতে উপজেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক মোঃ ওমর ফারুকের নেতৃত্বে উপজেলার বিভিন্ন গ্রাম থেকে আসা যুবকরা লাঠিসোটা নিয়ে অপরাধ কর্মকান্ডের জন্য প্রস্তুতিমূলক সভা করছিল। এসময় পুলিশ গোপন সূত্রে খবর পেয়ে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করে। এবিষয়ে বাঞ্ছারামপুর উপজেলা ছাত্রদলের সভাপতি জিসান সরকার বলেন, ‘‘আমাদের ছাত্রদল নেতাদেরকে অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করা হয়েছে। আমরা সাংগঠনিক বিষয় নিয়ে আলোচনা করতে বসছিলাম। আমাদের বিরুদ্ধে পুলিশ যেসব অভিযোগ এনেছেন তা মিথ্যা। এই গ্রেফতারের তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি।’’ এবিষয়ে বাঞ্ছারামপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ সালাহ্ উদ্দিন চৌধুরী বলেন, ‘‘এসব ছাত্রদল নেতারা অপরাধমূলক কর্মকান্ড ঘটানোর উদ্দেশ্যে ভিটি ঝগড়ারচর গ্রামে লাটিসোটা নিয়ে বৈঠক করছিল। ঐখান থেকে তাদেরকে হাতেনাতে আটক করেছি।’’