এখনই চিন্তা করার সুযোগ নেই যে আমি নির্বাচিত হয়ে গেছি: মাশরাফি

স্পোর্টস আপডেট ডেস্ক- বৃহৎ পরিসরে দেশের জন্য কিছু করার সুযোগকে কাজে লাগাতেই নির্বাচনে এসেছেন বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের ওয়ানডে অধিনায়ক ও নড়াইল-২ আসনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী মাশরাফি বিন মর্তুজা।

মঙ্গলবার দুপুরে মিরপুর শেরেবাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সঙ্গে আসন্ন ওয়ানডে সিরিজ উপলক্ষে  আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন তিনি। সেখানে তিনি খেলার চেয়ে বেশি কথা বলেছেন নির্বাচনের বিষয়েই। মনোনয়ন পত্র কেনার পর এই প্রথমবারের মতো আনুষ্ঠানিকভাবে সংবাদ মাধ্যমের সাথে কথা বলেছেন তিনি।

মাশরাফি একটি বিষয় নিশ্চিত করে জানিয়েছেন যে অন্তত ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সিরিজ শেষ হওয়ার আগে ক্রিকেট ব্যতীত অন্য কিছু নিয়ে ভাবছেন না তিনি। একইসাথে সিরিজ শুরুর আগে এমন অনানুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলন করার কারণটাও জানিয়ে দেন বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক।

মাশরাফি বলেন, ‘আমি চাই না ম্যাচের আগের দিন ম্যাচ সংক্রান্ত প্রেস কনফারেন্সে আমাকে নির্বাচন বা রাজনীতি বিষয়ক কোনো প্রশ্ন করা হোক। যেহেতু সামনে ৬ তারিখে একটা অনুশীলন ম্যাচ ও পরে ৯ তারিখে প্রথম ওয়ানডে। তাই এ সময়ের মধ্যে আমাকে মিডিয়ার সামনে আসতেই হবে। তখন আমি চাই না ক্রিকেটের বাইরে কোনো কথা বলতে। আমি আজ এ (নির্বাচন) ব্যাপারে কথা বললেও ১৪ তারিখ অর্থাৎ সিরিজের শেষ ওয়ানডে পর্যন্ত ক্রিকেটই আমার একমাত্র ধ্যান-জ্ঞান। এসময়ে যাতে ক্রিকেটের বাইরে কিছু ভাবতে না হয়, সে কারণেই আজকের প্রেস কনফারেন্স।’

নির্বাচনে আসা নিয়ে প্রশ্ন করা হলে মাশরাফি বলেন, আমার উদ্দেশ্য ক্লিয়ার। মানুষের জন্য কাজ করতে চাই। যদি সে সুযোগটা পাই। আমি আপনাদের স্বপ্ন দেখাতে আসে নাই। যদি গতানুগতিক কথা হয়ে থাকে, আমি গতানুগতিক  কথা বলতে চাই না। আমি এমন কথা বলতে চাই না, যেটা আপনি আগামীকাল এ কথা মেলাতে পারবেন না। আমার কাছে মনে হয়, সে সুযোগটা যদি আমার আসে। সেই সঙ্গে এখনই চিন্তা করার সুযোগ নেই যে আমি নির্বাচিত হয়ে গেছি। আর নির্বাচিত হওয়ার পর যদি সে সুযোগটা আসে এবং আপনাদের যদি মনে চায় রিভিউ করতে আমার কাজগুলো। তখন অবশ্যই করবেন।

এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি আরও বলেন, সাপোর্ট অবশ্যই ভাল। যতটুকু কথা হয়েছে। সবাই সাপোর্ট করছে, যদি আমি এখনোও এলাকায় যেতে পারি নাই। তাই টোটালে বলা কঠিন।