সংবাদ শিরোনাম
ব্যক্তি স্বার্থ হাসিলের জন্যই প্রিয়া সাহা মিথ্যাচার করেছেন: পূর্তমন্ত্রী | নবীগঞ্জে কলেজছাত্রীকে উত্যক্ত করার অভিযোগে যুবকের ৬ মাসের কারাদন্ড | কুমিল্লায় ছেলেধরা সন্দেহে ফেরিওয়ালাসহ ৪ জনকে গণপিটুনি | হাটে জাল কিনতে গিয়ে ছেলেধরা সন্দেহে গণপিটুনি খেলেন ভ্যানচালক | সকাল ৮টায় ঈদুল আজহার প্রধান জামাত | লাইট আর ফ্যান চালিয়েই মাসে বিদ্যুৎ বিল ১২৮ কোটি টাকা! | উলিপুরে বানভাসিদের কাছে কিস্তির টাকা আদায় করছে এনজিও! | চাঁদপুর শহরে স্কুল শিক্ষিকাকে জবাই করে হত্যা | নোয়াখালীতে চেয়ারম্যান কর্তৃক সাংবাদিক সুমনকে নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন | যে দুই কারণে জামিন হয়নি মিন্নির |
  • আজ ৬ই শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

সেন্ট মার্টিনে রাতে থাকা নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হচ্ছে না

১২:৪৯ পূর্বাহ্ণ | রবিবার, ডিসেম্বর ৯, ২০১৮ চট্টগ্রাম

সময়ের কণ্ঠস্বর :: সেন্ট মার্টিনে পর্যটকদের রাত্রিযাপনে নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হচ্ছে না। তবে সেখানে যাওয়ার আগে জাতীয় পরিচয়পত্রের বিপরীতে পর্যটকদের রেজিস্ট্রেশন করতে হবে।

শনিবার বণিক বার্তার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, স্থানীয়দের কর্মসংস্থান ও হোটেল-মোটেলে বিনিয়োগ করা ব্যবসায়ীদের পুনর্বাসনে বিকল্প ব্যবস্থা না হওয়া পর্যন্ত সেন্ট মার্টিনে পর্যটকদের রাতযাপনে নিষেধাজ্ঞা কার্যকর করা হবে না।

উল্লেখ্য, সেন্ট মার্টিনের সুরক্ষায় গঠিত আন্তঃমন্ত্রণালয় কমিটি গত ১৩ সেপ্টেম্বর যাত্রীযাপনের ওপর ওই নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিল।

কিন্তু সম্প্রতি মন্ত্রণালয় যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে সেখানে বলা হয়েছে, পর্যটকরা সেন্ট মার্টিন যেতে চাইলে আগে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। জাতীয় পরিচয়পত্রের বিপরীতে হবে এ রেজিস্ট্রেশন। এ জন্য ফি নির্ধারণ করা হবে। সেন্ট মার্টিনের কারা যাচ্ছে তার তথ্য সংরক্ষণ করা হবে। এছাড়া একই পর্যটক বারবার যেতে পারবেন না।

এ বিষয়ে বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মহিবুল হক গণমাধ্যমকে জানান, সেন্ট মার্টিনে পর্যটকদের রাতযাপন নিষিদ্ধ করা না হলেও সেটা সীমিত করা হবে। কারণ দ্বীপটির স্থানীয়দের কর্মসংস্থান মূলত বেড়াতে যাওয়া পর্যটকদের ঘিরেই চলে আসছে। এছাড়া সেখানে অনেক হোটেল-মোটেলে বিনিয়োগ রয়েছে ব্যবসায়ীদের। পর্যটকদের রাতযাপন হঠাৎ বন্ধ করে দিলে তাদের ওপর বিরূপ প্রভাব পড়বে। এ কারণে বিকল্প ব্যবস্থা চিন্তা করা হচ্ছে। দ্বীপসংশ্লিষ্টদের পুনর্বাসনের পরই রাতযাপন বন্ধের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।