সুন্দর তো সবাই খোঁজে, কিন্তু পৃথিবীর সবচেয়ে বিশ্রী জুতা?

চিত্র-বিচিত্র ডেস্ক :: পৃথিবীতে এক এক মানুষের এক এক পছন্দ। কেউ কারো চেয়ে কোনো অংশে কম যান না এক্ষেত্রে। কেউ তো সবার থেকে আলাদা কিছু করতে খুবই পছন্দ করে। যা হবে সবার কাছে ব্যতিক্রমী। অন্যের চোখ ছানাবড়া দেখতেই এ জাতীয় মানুষের আনন্দ।

এ জন্য তারা নানা রকমের কাণ্ড ঘটান। যা দেখে অন্যদের সত্যি সত্যিই চোখ ছানাবড়া হয়ে যায়। তেমনি একজন মানুষ চীনের শিল্পী ঝু তিয়ান। তিনি বানিয়েছেন পৃথিবীর সবচেয়ে বিশ্রী জুতা!

ঝুয়ের তৈরি মেয়েদের একজোড়া হাইহিল (কিলার হিল) শুধু একবার দেখলেই আপনার গা রি রি করে করে উঠবে। কারণ হিল জোড়ায় লাগানো হয়েছে মানুষের গায়ের লোম!

সূক্ষ্ম এ কাজটি ঝু তিয়ান নিজেই করেছেন। তিনি যে মেধাবী শিল্পী তা তার সৃষ্টিটতেই বোঝা যায়। সত্যিই এটি একটি বিশ্রী জুতা। শিল্পী ঝু জুতা জোড়ার প্রতিটি লোম একটি একটি করে নিজের হাতে লাগিয়েছেন। তার সর্বোচ্চ মেধা ব্যয় করেছেন তিনি এটা বানাতে গিয়ে।

তিনি মানুষের মনোজগত ভেবে এমন কিছু তৈরি করতে চাচ্ছিলেন যা হবে পৃথিবীর সবচেয়ে বিশ্রি। আর তাই-ই তিনি বানাতে সক্ষম হলেন।

ফর্সা ত্বকের মতো রঙের জুতায় হেঁটে যাচ্ছে দুটো মেয়েলি পা। এ দৃশ্য তো যে কাউকে মুগ্ধ করবেই। কিন্তু যদি দেখেন জুতোর গায়ে মানুষের গায়ের লোম লাগানো রয়েছে তাহলে কি রকম রি রি করে উঠবে না গা? আরো আছে কুমিরের দাঁতওয়ালা মুখের মত জুতাও!