সংবাদ শিরোনাম
  • আজ ৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

বাধা মানল না আবেগ, মাঠে এসেই বিরাটকে জড়িয়ে ধরলেন অনুষ্কা!

১২:০১ অপরাহ্ণ | সোমবার, জানুয়ারি ৭, ২০১৯ খেলা

স্পোর্টস আপডেট ডেস্ক- জয়ের সাফল্য। প্রিয়জন সেই জয়ের কাণ্ডারী বললে ভুল হবে না। তাই আর বাধা মানল না আবেগ। মাঠেই স্বামী-ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহালিকে জড়িয়ে ধরলেন অনুষ্কা শর্মা। জানালেন শুভেচ্ছা।

দু’জনের চোখেই জল। কেউ কিছু বলতে পারছেন না। এর পর অনুষ্কার মাথায় হাত রাখলেন বিরাট। দু’জনেই হেসেও ফেললেন, এমনই সব মুহূর্ত ক্যামেরাবন্দি করেছেন পাপারাজ্জিরা।

অনুষ্কা বরাবরই বলেন, বিরাট তাঁর জীবেনর অন্যতম অনুপ্রেরণা। আর বিরাটের অধিনায়কত্বে ভারতের এই ঐতিহাসিক সিরিজ জয়ের সাক্ষী রইলেন স্ত্রী অনুষ্কাও। তাই আবেগপ্রবণ হয়ে এভাবেই শুভেচ্ছা জানালেন বিরাটকে।

অনুষ্কা নিজেও তাই ব্যস্ত শিডিউল সামলে ক্রিকেটে ম্যাচে উপস্থিত থেকে বিরাটকে অনুপ্রেরণা দেন। অনুষ্কাও প্রচারমাধ্যমে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে বিরাট সম্পর্কে বহুবার বলেন, ‘‘এই বিশ্বের সেরা মানুষটির সঙ্গেই বিয়ে হয়েছে আমার।’’

অনুষ্কা বিরাটকে এভাবে শুভেচ্ছা জানানোর পরই ‘অ্যাডরেবল কাপল’-এর ছবিগুলি ভাইরাল হয়ে যায়। বিরাট অনুষ্কার কাঁধে হাত রেখেই এ দিন ছিলেন মাঠে। অনুষ্কার মুখে গর্বের হাসি। প্রিয়জনের নেতৃত্বে এই ঐতিহাসিক মুহূর্তের সাক্ষী তিনি। বলিউডের অন্যতম ব্যস্ত নায়িকা ক্রিকেট অনুরাগী অনুষ্কাকে দেখে ‘প্রাউড ওয়াইফ’ বললে খুব একটা ভুল হবে না।

অনুষ্কাকে এ বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি আগেও বলেছেন , ‘‘অনেকেই আমাকে জিজ্ঞাসা করেন, জনপ্রিয় দম্পতি হওয়ায় কী ভাবে নিজেদের তারকাসুলভ ইমেজ বাদ দিয়ে দু’জনে রয়েছি। তাঁদের জানিয়ে দিই, বিষয়টিকে এ ভাবে দেখি না আমরা কেউ। এটা তখনই হবে, যখন আমাদের সম্পর্ক খারাপ হবে।’’

কপিল দেব, রাহুল দ্রাবিড় বা মহেন্দ্র সিংহ ধোনি যা পারেননি। খুব কাছে গিয়েও ফিরে এসেছিলেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ও। বিরাট কোহালির হাত ধরে এ বার সেই অধরা ইতিহাসকে ছুঁয়ে ফেলল ভারতীয় ক্রিকেট দল। ইতিহাসে প্রথম বার অস্ট্রেলিয়ার মাটি থেকে টেস্ট সিরিজ জিতে ফিরছে ভারত। স্বামীর অধিনায়কত্বে সেই ইতিহাস ছোঁয়ার সাক্ষী রইলেন অনুষ্কাও।

সিডনিতে বৃষ্টিতে ম্যাচ ড্র হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ২-১ ফলাফলে সিরিজ জিতে নিল ভারত। শুধু তাই নয়, এশিয়ার প্রথম দল হিসেবেও অস্ট্রেলিয়ার মাঠে টেস্ট সিরিজ জিতল ভারত।

এর আগে শেষ বার অস্ট্রেলিয়ায় সিরিজ জয়ের সুযোগ এসেছিল ২০০৩-০৪ সালে। কিন্তু, সে বার ভারত এবং সিরিজ জয়ের মাঝে দাঁড়িয়ে পড়েছিলেন স্টিভ ও। সে দিন স্টিভের স্টাম্পিং সুযোগ নষ্ট করেছিলেন পার্থিব পটেল। আর তার পরই অজি অধিনায়কের মহাকাব্যিক ইনিংস প্রাচীর হয়ে দাঁড়িয়েছিল ভারতের টেস্ট জয়ের মাঝে। সে দিন ম্যাচটি ড্র হয়ে যাওয়ায় সিরিজ জয় হাতছাড়া হয় ভারতের। ইতিহাসের দোড়গোড়া থেকে ফিরে আসতে হয়েছিল এক বঙ্গসন্তানকে। সৌরভের হাত ধরে সে দিন যা অসম্পূর্ণ থেকে গিয়েছিল, তারই যেন শাপমোচন হল সোমবার।