পলকের হেলমেট ছাড়া ছবি নিয়ে যা বললেন ওবায়দুল কাদের

পলকের হেলমেট ছাড়া ছবি নিয়ে যা বললেন ওবায়দুল কাদের

সময়ের কণ্ঠস্বর, ঢাকা- নতুন মন্ত্রিসভায় আবারও তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী হয়েছেন জুনাইদ আহমেদ পলক। আর প্রথম দিন (০৮ জানুয়ারি) দুপুরে বাইকে চড়ে গিয়ে প্রথম দিনের অফিস করেছেন তিনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এমন তথ্য জানিয়েছিলেন এই প্রতিমন্ত্রী।

পরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে যায় প্রতিমন্ত্রীর সে ছবি। কিন্তু তিনি আলোচনায় আসেন অন্য কারণে। ছবিতে প্রতিমন্ত্রীকে হেলমেট ছাড়া বাইকে দেখা যাচ্ছে তাই নিয়ে তার বিরুদ্ধে যত আলোচনা আর সমালোচনা করেছেন সচেতন ফেসবুক ব্যবহারকারীরা।

আজ বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে প্রেস ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। পলকের সেদিনের হেলমেট ছাড়া ছবি নিয়েও আজ কথা বলেন ওবায়দুল কাদের।

কোনা কোনো ভিআইপি সড়কে নিয়ম মানেন না। নতুন মন্ত্রিসভার একজন সদস্য নিজেই মোটরসাইকেলে হেলমেট ছাড়া ছবি পোস্ট করেছেন ফেসবুকে- এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘পার্টির সাধারণ সম্পাদক হিসেবে আমি তাকে জিজ্ঞেস করেছি, হি এক্সপ্রেস হিজ রিগ্রেট ফর ইট (ওই ঘটনায় সে অনুতপ্ত)। সে বলেছে যে, সে ভুল করেছে, আমি আর রিপিট করব না (এমন কাজ আর করবেন না)। এ কথাটা সে খুব খোলা মনে আমার কাছে স্বীকার করেছে, সে আমাদের মন্ত্রী। হি রিগ্রেট এক্সপ্রেস, এরপর তো আমি কিছু বলব না। সে তো বলেনি, সে সঠিক করেছে।’

এর আগে হেলমেট ছাড়া ছবি নিয়ে সমালোচনা যখন বাড়ছে ঠিক তখনই মুখ খুলেন জুনাইদ আহমেদ পলক। তিনি গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধা জানিয়ে ফেরার পর সংসদে আমাদের নামিয়ে দেওয়া হয়। অন্যদিকে ১২টার সময় আমার পূর্বনির্ধারিত সভা ছিল আইসিটি বিভাগে। সংসদ আগারগাঁও যাওয়ার সময় আমি জ্যামে পড়ি সে কারণে একটি মোটরসাইকেলে লিফট নিই। আমি যে বাইকের সাহায্য নিয়েছি, তার কাছে কোনও বাড়তি হেলমেট ছিল না।

উল্লেখ্য, মোটরযান আইন অনুযায়ী, মোটরবাইকে হেলমেট পরা বাধ্যতামূলক।

গত বছর রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কে দুই স্কুল শিক্ষার্থীর নিহত হওয়ার পর নজিরবিহীন আন্দোলনে ট্রাফিক আইন মানার বিষয়ে কঠোর হয়েছে প্রশাসন।