ফাঁকা বাসায় ডেকে নিয়ে শিশু ধর্ষণ করল কলেজ পড়ুয়া ছাত্র!

মেজবাহুল হিমেল, রংপুর ব্যুরো :: আদিবাসী পল্লীতে শিশু ধর্ষণ ঘটনার অভিযোগের তিন দিন পার না হতেই রংপুরে আরো এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ফাঁকা বাসায় ডেকে নিয়ে সাত বছরের শিশুকে ধর্ষণ করেছে কলেজ পড়ুয়া এক ছাত্র। এমন অভিযোগ করেছেন এক দিনমজুর বাবা। শনিবার (১২ জানুয়ারী) দুপুরে রংপুর মহানগরীর মাহিগঞ্জ এলাকায় এ ধর্ষণের ঘটনাটি ঘটেছে বলে জানা গেছে।

মূমুর্ষ অবস্থান শিশুটিকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় মাহিগঞ্জ থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছে শিশুর পরিবার। এদিকে অভিযুক্ত দুখু মিয়া (১৮) ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছে।

শিশুটির দাদা মকবুল হোসেন জানান, শনিবার দুপুরে প্রতিবেশি আব্দুস সামাদের কলেজ পড়ুয়া ছেলে দুখু মিয়া তাদের ফাঁকা বাসা ডেকে নিয়ে আমার নাতনীকে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। সন্ধ্যায় রক্তাক্ত অবস্থায় ওই শিশুকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। শিশুটির অবস্থা মূমুর্ষ বলে দাবি করেন তিনি।

এদিকে শিশুটির বাবা শাহিন মিয়া বলেন, ঘটনাটি জানার পর পরই মেয়েকে হাসপাতালে নিয়ে যাবার পথে মাহিগঞ্জ থানায় গিয়ে অভিযোগ করেছি। অভিযুক্ত দুখু মিয়া তার মা-বাবার অনুপস্থিতির সুযোগে এ ঘটনা ঘটিয়েছে বলে জানান তিনি।

এ ব্যাপারে মাহিগঞ্জ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আখতারুজ্জামান প্রধান জানান, মাহিগঞ্জ নব্দীগঞ্জ ফতা এলাকার দিনমজুর শাহিন মিয়া ধর্ষণ চেষ্টার একটি মৌখিক অভিযোগ করেছেন। বিষয়টি আমরা খতিয়ে দেখছি।

উল্লেখ্য, গত ৯ জানুয়ারী বুধবার রংপুরের পীরগঞ্জের চৈত্রকোল ইউনিয়নের খালিশা গ্রামের আদিবাসী পল্লীতে ছয় বছরের একটি শিশু ধর্ষণের শিকার হয়। এঘটনায় ধর্ষক রুবেল তির্কীকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে গ্রামবাসী। পীরগঞ্জের ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই আবারো রংপুরে শিশু ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।

Sharing is.

Share on facebook
Share with others
Share on google
Share On Google+
Share on twitter
Share On Twitter
  • You May Also Like: