কাজ ভাল লাগে না, বান্দরবানে ঘুরতে এসে আটক মিয়ানমারের সেনা

৫:৪০ অপরাহ্ণ | শনিবার, জানুয়ারি ২৬, ২০১৯ আলোচিত
Image00792t526y442

সময়ের কণ্ঠস্বর, বান্দরবান- বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার লেম্বুছড়ি সীমান্ত থেকে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর এক সদস্যকে আটক করেছে বিজিবি। গত বৃহস্পতিবার (২৪ জানুয়ারি) বিকেলে বাংলাদেশের ভূখণ্ডে পাহাড়ি এলাকায় ঘোরাফেরা করার সময় স্থানীয়রা তাকে আটক করে বিজিবি ক্যাম্পে সোপর্দ করে।

আটককৃত ওই সেনা সদস্যের নাম অং বো থিন। তার বাড়ি মিয়ানমারের ইয়াংগুনে। আটকের পর জিজ্ঞাসাবাদে অং বো থিন জানান, ক্যাম্পের কাজ ভাল না লাগায় সীমান্ত পাড়ি দিয়ে বান্দরবানে ঘুরতে এসেছিলেন তিনি।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি মিয়ানমার সেনাবাহিনীর এল.আই.বি-২৮৭ ব্যাটালিয়নের সদস্য বলে স্বীকার করেন। তিনি গত এক বছর আগে কাচিন প্রদেশ থেকে বান্ডুলায় বদলি হয়ে আসেন এবং বর্তমানে বান্ডুলা-৫০ ক্যাম্পে দায়িত্বরত। তাকে বিজিপিতে প্রেষণে নিয়োগ করা হয়েছে।

তার ভাষ্য অনুযায়ী, গত ২২ জানুয়ারি বাংলাদেশ সীমান্ত পিলার ৪৯ লেম্বুছড়ি এলাকার কালভার্টের নিচ দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেন। কারণ হিসেবে তিনি জানান, ওইদিন তাকে বান্ডুলা ক্যাম্পে কাজ করতে বলা হয়। তিনি কাজ করতে অপারগতা প্রকাশ করেন। পরে তিনি বাংলাদেশে প্রবেশ করেন। গত দুই দিনে পাহাড়ে পাহাড়ে ঘোরাফেরা করেন। বৃহস্পতিবার স্থানীয় লোকজন তাকে ধরে ফেলে।

এ বিষয়ে বিজিবির কক্সবাজার সেক্টর কমান্ডার কর্নেল বায়েজিদ খান সাংবাদিকদের জানান, জিজ্ঞাসাবাদে আটক ব্যক্তি নিজেকে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর সদস্য বলে দাবি করেছেন। বান্ডুলা ক্যাম্পে কাজ ভালো না লাগায় তিনি বাংলাদেশে পালিয়ে আসেন বলে জানিয়েছেন। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

কর্নেল বায়েজিদ আরও বলেন, আমরা এত দিন জানতাম মিয়ানমার সীমান্তে বিজিপি সদস্যরা থাকে। তাদের পেছনে থাকে সেনাবাহিনী। কিন্তু এ সদস্য ধরা পড়ার পর দেখছি সীমান্তে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর সদস্য মোতায়েন রয়েছে। তারা বিজিপির পোশাক পরে দায়িত্ব পালন করছে।