৭ বছরের শিশুকে পাঁচ টাকার কয়েন দিয়ে ধর্ষণ করল পঞ্চাশোর্ধ বৃদ্ধ!

৮:৪৩ অপরাহ্ণ | শনিবার, ফেব্রুয়ারি ২, ২০১৯ আলোচিত
7 years old girl raped

সময়ের কণ্ঠস্বর, নীলফামারী :: নীলফামারীর কিশোরগঞ্জে পঞ্চাশোর্ধ বৃদ্ধের বিরুদ্ধে ৭ বছরের কন্যা শিশুকে ধর্ষণ করার অভিযোগ উঠেছে। শনিবার দুপুরে উপজেলার বড়ভিটা ইউনিয়নের ঘোনপাড়া গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

অভিযুক্ত ওই ব্যক্তির নাম- কাল্টু মামুদ (৫১)। সে একই গ্রামের নিজাম উদ্দিনের ছেলে। ধর্ষিতা শিশুটিকে প্রথমে কিশোরগঞ্জ উপজেলা হাসপাতাল এবং পরে নীলফামারী আধুনিক সদর হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

জানা যায়, ওই গ্রামের আইয়ুব আলী তার কন্যা শিশুটিকে বাড়িতে রেখে তিনিসহ তার স্ত্রী বাইরে কাজে যায়। এ সময় তাদের ৭বছরের শিশুকন্যা বাড়িতে একাই ছিল। বাড়িতে একা পেয়ে প্রতিবেশী মেয়েটিকে ঘরে ঢুকে মুখ চেপে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়।

শিশুটির মা আফরোজা বেগম জানান, আমি আমার মেয়েকে বাড়িতে রেখে সকাল বেলা আলু ক্ষেতে কাজ করতে যাই। বাড়িতে ফিরে এসে দেখি লম্পট কাল্টু মামুদ আমার মেয়ের ঘর থেকে বের হচ্ছে। এরপর ঘরের ভেতরে গিয়ে দেখি আমার মেয়ে কাঁদছে।

তিনি বলেন, পরে তিনি তাঁর মেয়ের কাছে কান্নার কারণ জানতে চাইলে তার মেয়ে কাল্টু মামুদের দিকে আঙ্গুল দিয়ে দেখিয়ে দেয়। এবং তার মেয়ে তাকে জানায়, কাল্টু মামুদ তার হাতে ৫ টাকার একটি কয়েন দিয়ে ফুসলিয়ে তাঁর শয়ন ঘরেই জোর করে ধর্ষণ করেছে।

আফরোজা বেগম আরো বলেন, এসময় আমি পেছন থেকে কাল্টু মামুদকে ডাকলে সে দৌড়ে পালিয়ে যায়।

কিশোরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মুঠোফোনে বলেন, শিশুটিকে পুলিশ হেফাজতে নেয়া হয়েছে। ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য তাকে হাসপাতালেও ভর্তি করা হয়েছে। রোববার ডাক্তারী পরীক্ষা সম্পন্ন হবার পর ধর্ষণের বিষয়টি প্রমাণীত হলে প্রয়োজনয়ি আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।