৯ বছরের শিশুকে ধর্ষণ করে ‘সিভিট’ দেয় মামা!

সময়ের কণ্ঠস্বর, কুমিল্লা- বাজার থেকে শ্যাম্পু কিনে বাড়ি ফেরার পথে দোকানের ভেতরে ডেকে নিয়ে জোরপূর্বক ৯ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণ করেছে তারই গ্রামসম্পর্কীয় এক মামা। এ ঘটনায় সুভাষ চন্দ্র দাস (৫৫) নামে ওই ধর্ষককে আটক করেছে পুলিশ।

গতকাল সোমবার দুপুরে উপজেলার দুলালপুর বাজারে এ ঘটনা ঘটে।

ধর্ষণের শিকার শিশুটি স্থানীয় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রী। এদিন রাতেই শিশুটির মা বাদী হয়ে হোমনা থানায় ধর্ষণের মামলা দায়ের করেছেন।

ধর্ষক সুভাষ চন্ডিপুর গ্রামের মৃত রাজেন্দ্র চন্দ্র দাসের ছেলে। তিনি দুলালপুর বাজারে ওষুধের ব্যবসার পাশাপাশি দুলালপুর সাব পোস্ট অফিসের পোস্টমাস্টার হিসেবে কর্মরত আছেন।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হোমনা সার্কেল সাইফুর রহমান আজাদ জানান, শিশুটি ওইদিন দুপুরে বাজার থেকে শ্যাম্পু কিনে সুভাষের দোকানের পাশ দিয়ে বাড়ি ফেরার পথে দোকানের ভেতরে ডেকে নিয়ে জোরপূর্বক তাকে ধর্ষণ করে। পরে তার হাতে ‘সিভিট’ ট্যাবলেট ধরিয়ে দিয়ে এ ঘটনা কারো কাছে না বলার জন্য ভয়ভীতি ও শাসিয়ে দেয়।

শিশুটির মা জানান, ওইদিন দুপুরে মেয়েটিকে শ্যাম্পু কিনতে ১০ টাকা দিয়ে বাজারে পাঠান। আসতে দেরি দেখে তিনি বিভিন্ন রাস্তা ও দোকানে গিয়ে মেয়ের খোঁজ করেন। না পেয়ে বাড়ি চলে আসেন। অনেক পরে মেয়ে শ্যাম্পু নিয়ে বাড়ি ফিরলে তিনি তাকে থাপ্পড় দেন। পরে মেয়েকে গোসলের জন্য নিয়ে গেলে তার বুকে দাগ দেখতে পান। এ ব্যাপারে জিজ্ঞাসা করলে তার মেয়ে জানায়, সুভাষ মামা তার সঙ্গে এমন করেছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে হোমনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সৈয়দ মো. ফজলে রাব্বী জানান, শিশুটিকে ধর্ষণের ঘটনায় তার মা বাদী হয়ে মামলা করেছে। এ ঘটনায় আসামি সুভাষ চন্দ্র দাসকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

শিশুটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ (কুমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে জানান উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক ডাক্তার মো. রাশেদুল ইসলাম রাশেদ।

Sharing is.

Share on facebook
Share with others
Share on google
Share On Google+
Share on twitter
Share On Twitter
  • You May Also Like:
  • Top Views