চাঁদপুর সরকারি কলেজের ক্রীড়া ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী

১:২৯ অপরাহ্ণ | শনিবার, মার্চ ১৬, ২০১৯ চট্টগ্রাম
dipu

আশিক বিন রহিম, চাঁদপুর: চাঁদপুর জেলার সর্বোচ্চ বিদ্যাপীঠ চাঁদপুর সরকারি কলেজের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। আজ শনিবার (১৬ মার্চ) সকাল ১১টায় কলেজ মাঠে বর্ণাঢ্য আর উৎসবমুখর আয়োজনের মধ্য দিয়ে এই পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন শিক্ষামন্ত্রী ও চাঁদপুর-৩ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব এমপি। কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. এ.এস.এম দেলোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন – ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের সচিব শহিদুল খবির চৌধুরী, চাঁদপুরের জেলা প্রশাসক মোঃ মাজেদুর রহমান খান, পুলিশ সুপার মোঃ জিহাদুল কবির পিপিএম, চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র আলহাজ্ব নাছির উদ্দিন আহমেদ, সাধারন সম্পাদক আলহাজ্ব আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে শিক্ষামন্ত্রী বলেন – ক্রীড়া প্রতিযোগিতা হচ্ছে শিক্ষার অবিচ্ছেদ্য অংশ। শিক্ষার পাশাপাশি ক্রীড়া ও সাংস্কৃতি চর্চার প্রয়োজন রয়েছে। খেলাধুলার মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের মাঝে প্রতিযোগিতার মনোভাব সৃষ্টি হয়। জীবনের প্রতিটা ক্ষেত্রে এই মনোভাব কাজে লাগবে। শিক্ষা অর্জনের পাশাপাশি তোমরা দেশপ্রেম, নীতি নৈতিকতা শিখবে। নিজেকে ভালো মানুষ হিসেবে গড়ে তুলবে। দেশের অগ্রযাত্রার যে ভিশন নেয়া হয়েছে তা বাস্তবায়নে তোমরা যার যার অবস্থান থেকে সামিল হবে।

তিনি আরও বলেন, চাঁদপুর সরকারি কলেজের সাথে আমার আত্মার সম্পর্ক রয়েছে। কারণ আমার মাও এই কলেজের ছাত্রী ছিলেন। এই কলেজটি প্রতিষ্ঠাতা হোসেন শদীদ সোহ্রাওয়ার্দী, যিনি উপমহাদেশের একজন মহান এবং আলোকিত মানুষ। তাই তোমারা এই কলেজের ইতিহাস এবং ঐতিহ্য লালন এবং ধারণ করবে। আমি এই কলেজের উন্নয়নে সব সময় পাশে ছিলাম, আছি এবং থাকবো।

স্বাগত বক্তব্য রাখেন – ক্রীড়া উদযাপন কমিটির আহ্বায়ক প্রফেসর মোহাম্মাদ বেলাল হোসাইন। অনুষ্ঠানের শুরুতেই জাতীয়, কলেজ, ক্রীড়া, বিএনসিসি, রোবার স্কাউট ও যুব পতাকা উত্তোলন করা হয়। পরে প্রধান অতিথির বক্তব্য শেষে বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে ক্রীড়া অনুষ্ঠানের শুভ উদ্বোধন করা হয়। পরে শপথ বাক্য পাঠ এবং শিক্ষার্থীদের কুচকাওয়ার অনুষ্ঠিত হয়। সব শেষে ক্রীড়া প্রতিযোগীতায় বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলেদেন অতিথিবৃন্দ।

ক্রীড়া উদযাপন কমিটির সদস্য শিক্ষক রূপক রায়ের পরিচালনায় উপস্থিত ছিলেন – স্বাধীনতা পদক প্রাপ্ত নারী মুক্তিযোদ্ধা ডা. সৈয়দ বদরুন্নাহার চৌধুরী, সরকারি মহিলা কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর মনোহর আলী, পুরাণবাজার ডিগ্রি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ দেলোয়ার হোসেন, চাঁদপুর জেলা আ’লীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক এ্যাড. মজিবুর রহমান ভুইয়া, চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি শহীদ পাটওয়ারী, সাধারণ সম্পাদক লক্ষ্মন চন্দ্র সূত্রধর, সাবেক সভাপতি ইকরাম চৌধুরী, সাবেক সভাপতি কাজী শাহাদাত, বিএম হান্নান, সাবেক সভাপতি শরীফ চৌধুরী, সাবেক সাধারন সম্পাদক মোহাম্মদ হোসেন, রহিম বাদশা, সোহেল রুশদী, জিএম শাহীন, জেলা আওয়ামী লীগের উপ দপ্ত সম্পাদক এ্যাড. রণজিত রায় চৌধুরী, সদস্য জিল্লুর রহমান জুয়েল, চাঁদপুর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আতাউর রহমান পারভেজ প্রমুখ।

ক্রীড়া প্রতিযোগিতার সার্বিক তত্ত্বাবধায়নে ছিলেন – কলেজের উপাদক্ষ অসিত বরণ দাস, শিক্ষক পরিষদের সাধারন সম্পাদক মোঃ ওয়াহিদুজ্জামান, সাবেক সম্পাদক আলমগীর হোসেন বাহার, ক্রীড়া কমিটির সদস্য সচিব স্বপন কুমার সাহা, সদস্য মেহেদী হাসানসহ সকল বিভাগের প্রধান ও অন্যান্য শিক্ষকগণ।