লিচু খেতে গেলে বাগানের ঝুপড়ি ঘরে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ করে দুই পাহারাদার!

২:৩৯ অপরাহ্ণ | শনিবার, জুন ১, ২০১৯ অপরাধ

দিনাজপুর প্রতিনিধি :: দিনাজপুরের বীরগঞ্জে লিচুবাগানে লিচু খেতে গিয়ে গণধর্ষণের শিকার হয়েছে ষষ্ঠ শ্রেণীর এক স্কুলছাত্রী। বাগানের পাহারাদার মো. খলিল ও রণজিত দেবনাথ নামের দু’জন তাকে ধর্ষণ করে। তাদের আটক করে পুলিশে দিয়েছেন এলাকাবাসী।

ধর্ষক খলিল উপজেলার শতগ্রাম ইউনিয়নের প্রসাদপাড়া গ্রামের মৃত রফিক খাঁর ছেলে ও রণজিত জেলার খানসামা উপজেলার আলোকঝাড়ি ইউনিয়নের শুলশুলি গ্রামের কমল দেবনাথের ছেলে।

স্থানীয়রা জানান, শুক্রবার দুপুরে উপজেলার শতগ্রাম ইউনিয়নের রাঙ্গালীপাড়া গ্রামের গোপাল মাস্টারের লিচুবাগানে লিচু খেতে যায় ছাত্রীটি। এ সময় তাকে একা পেয়ে ঝুপড়ি ঘরে ধর্ষণ করে বাগানের দুই পাহারাদার। ছাত্রীটি বাগান থেকে কাঁদতে কাঁদতে বেরিয়ে যাওয়ার সময় আশপাশের লোকজন তাকে রক্তাক্ত অবস্থায় দেখে জিজ্ঞাসাবাদ করে। এ সময় সে ঘটনা খুলে বললে এলাকাবাসী গিয়ে দুই পাহারাদারকে আটক করে ও পুলিশে খবর দেন।

বীরগঞ্জ থানার এসআই আমজাদ আলীর নেতৃত্বে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে বিকালে দুই ধর্ষককে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে যায়।

এ ব্যাপারে এসআই আমজাদ জানান, গ্রেফতার খলিল ও রণজিত প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে।

বীরগঞ্জ থানার ওসি শাকিলা পারভিন জানান, এ ব্যাপারে মামলা হয়েছে। স্কুলছাত্রীকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।