সংবাদ শিরোনাম
মহিলাকে রাম দা দেভিয়ে ফেঁসে গেলেন যুবলীগ নেতা! | মেয়ের বাড়িতে মিলিত হতে গিয়ে আপত্তিকর অবস্থায় ধরা পড়ল যুবক! | ঘরের দরজা খুলে গৃহবধূর মুখ চিপে চারজন মিলে পালাক্রমে গনধর্ষণ! | ১০ বছরের শিশুকে সুপারি বাগানে নিয়ে ধর্ষণচেষ্টা চালাল রিক্সা চালক! | গায়ে হলুদের অনুষ্ঠানে অশ্লীল নৃত্য ও মদের আসরের প্রতিবাদ করায় প্রবাসীকে পিটিয়ে হত্যা! | ভারতের কাছে পাকিস্তানের লজ্জার হার! | আমেরিকার ঘুম হারাম করতে অবাক করা খবর দিলেন এরদোগান! | জাদুর খেলা দেখাতে গিয়ে মাঝনদীতে ‘ভ্যানিস’ জাদুকর! | মুক্তিযুদ্ধে চেতনা ও দক্ষতা বিবেচনায় পদোন্নতির নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর | রাজবাড়ীতে ইউপি চেয়ারম্যান কালাম মৃধাকে কুপিয়ে যখম |
  • আজ ৩রা আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

নিখোঁজের ১০ দিন পর নদী থেকে যুবকের অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার

১০:৪৪ পূর্বাহ্ণ | সোমবার, জুন ৩, ২০১৯ সিলেট

মতিউর রহমান মুন্না, নবীগঞ্জ প্রতিনিধি: নিখোঁজের ১০ দিন পর নবীগঞ্জের বিবিয়ানা নদী থেকে জীবন দাশ (২৬) নামের এক যুবকের অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

গতকাল রবিবার সন্ধায় উপজেলার বড় ভাকৈর ইউনিয়নের আমড়াখাইর এলাকার বিবিয়ানা নদী থেকে ভাসমান অবস্থায় লাশটি উদ্ধার করে নবীগঞ্জ থানা পুলিশ। জীবন দাশ সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার বোয়ালিয়া এলাকার জয়কৃষ্ণ দাশের পুত্র।

সূত্র জানায়, জীবন দাশ ঢাকার একটি গার্মেন্টসে কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করতো। ১২ দিন আগে ছুটি নিয়ে বাড়িতে আসে। গত শুক্রবার বিকেলে বন্ধুদের সাথে বাড়ি থেকে বেড়িয়ে গেলে আর ফিরে আসেনি। এ ব্যাপারে দিরাই থানায় একটি নিখোঁজ ডায়েরী করেন জীবন দাশের পরিবারের লোকজন।

গতকাল রবিবার বিকেলে হঠাৎ নবীগঞ্জের আমড়াখাইর এলাকায় বিবিয়ানা নদীতে সুইচ গেইটের পাশে একটি লাশ ভাসতে দেখে স্থানীয় লোকজন পুলিশকে খবর দেন।

খবর পেয়ে নবীগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) গোলাম দস্তগীর আহমেদের নের্তৃত্বে এসআই শাহিন আহমেদসহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার করেন। খবর পেয়ে জীবন দাশের পরিবারের লোকজন লাশটি সনাক্ত করেন। পরে পুলিশ লাশটির সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী করে ময়নাতদন্তের জন্য হবিগঞ্জ আধুনিক হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করে।

সূত্র জানায়, ঘটনার দিন জীবন দাশের বন্ধু রাজন নামের যুবক তাকে বাড়ি থেকে বের করে নিয়ে আসে। পরের দিন জীবন দাশের বাড়িতে গিয়ে তার মায়ের কাছে জীবনের ব্যবহৃত মোবাইল ফোন ও ম্যানিবেগ দিয়ে আসে রাজন। এর পর থেকে রাজনও পলাতক রয়েছে বলে সূত্রে জানা গেছে। ওই রাজন একটি মামলার ওয়ান্টেভূক্ত আসামী বলেও জানিয়েছে পুলিশ।

এ ব্যাপারে নবীগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) গোলাম দস্তগীর আহমেদ জানান, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা যাচ্ছে তাকে হত্যা করে লাশটি নদীতে ফেলে দেয়া হয়েছে। পরে আমড়াখাইর এলাকায় এসে ভেসে উঠলে খবর পেয়ে পুলিশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করে।