সংবাদ শিরোনাম
শাকিব খানকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা | র‌্যাবের ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলমকে হাইকোর্টে হাজির হওয়ার নির্দেশ | লাইনে দাঁড়িয়ে টিসিবির পেঁয়াজ কিনলেন মেয়র আরিফ! | পেঁয়াজ কিনতে গিয়ে ধাক্কাধা‌ক্কি, পু‌লিশের ‘মিস ফায়ারে’ গু‌লি‌বিদ্ধ ২ | মাত্র ৭৫ হাজার টাকা হলে বাঁচতে পারে অসুস্থ সেহের বানু! | অস্ত্রোপচারের সময় পেটে গজ-ব্যান্ডেজ রেখে সেলাই, প্রসূতির মৃত্যু | মির্জাপুরে অর্ধগলিত অজ্ঞাত যুবকের লাশ উদ্ধার | শেরপুর সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশি নিহত | বগুড়ার শেরপুরে মহাসড়কের ভূমি অধিগ্রহণে ন্যায্য ক্ষতিপূরণের দাবিতে মানববন্ধন | নতুন সড়ক আইনের প্রতিবাদে সাতক্ষীরার সকল রুটে বাস চলাচল বন্ধ |
  • আজ ৪ঠা অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

প্রাণ-আড়ং-মিল্কভিটাসহ ৭ দুধে ক্ষতিকর এন্টিবায়োটিক

৬:১৯ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, জুন ২৫, ২০১৯ ফিচার

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্ক- বাজারে প্রচলিত সাতটি পাস্তুরিত দুধে মানব চিকিৎসায় ব্যবহৃত ক্ষতিকর এন্টিবায়োটিকের উপস্থিতি পেয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বায়োমেডিক্যাল রিসার্চ সেন্টার ও ফার্মেসি অনুষদের গবেষকরা।

মঙ্গলবার (২৫ জুন) সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মেসি অনুষদের মোকাররম ভবনের পাশে বিজ্ঞান গ্রন্থাগারে অবস্থিত ফার্মেসি লেকচার থিয়েটারে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বক্তব্য রাখেন, সেন্টারের পরিচালক ও ওষুধ প্রযুক্তি বিভাগের অধ্যাপক আ ব ম ফারুক। এসময় উপস্থিত ছিলেন ফার্মাসিউটিক্যাল কেমিস্ট্রি বিভাগের অধ্যাপক ড. ফিরোজ আহমেদ।

সংবাদ সম্মেলনে দুধ ছাড়াও ফ্রুট ড্রিংকস, সরিষার তেল, সয়াবিন তেল, ঘি, গুঁড়া মশলা, শুকনা মরিচ, হলুদ, পাম অয়েল নিয়েও পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়।

পাস্তুরিত দুধের সতটি নমুনা হলো- মিল্কভিটা, আড়ং, ফার্ম ফ্রেশ, প্রাণ, ইগলু, ইগলু চকোলেট ও ইগলু ম্যাংগো। আর অপাস্তুরিত দুধের তিনটি নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে রাজধানীর পলাশী, গাবতলী ও মোহাম্মদপুর বাজার থেকে।

অধ্যাপক আ ব ম ফারুক বলেন, আমরা যে ফলাফল দিয়েছি তা নমুনার ফলাফল। তার মানে এই না যে ওইসব কোম্পানির সব পণ্যই এরকম। আমরা কিন্তু থাকবো না মরে যাবো, যদি এভাবে যত্রতত্র এন্টিবায়োটিকের ব্যবহার করা হয়। এন্টিবায়োটিক যে গরুকে খাওয়ানো হলো ওই গরুর দুধ ও মাংস আমরা খেলে তা আমাদের শরীরে প্রবেশ করবে। মানুষকে বাঁচাতে আপনারা এখনই গরুকে এন্টিবায়োটিক খাওয়ানো বন্ধ করুন।

এসব দুধে এন্টিবায়োটিকের উপস্থিতি অত্যন্ত উদ্বেগের উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমাদের পরীক্ষায় পাস্তুরিত দুধের সাতটি নমুনার সবগুলোতেই মানবচিকিৎসায় ব্যবহৃত এন্টিবায়োটিক লেভোফ্লক্সসিন, সিপ্রোফ্লক্সাসিন ও এজিথ্রোমাইসিনের উপস্থিতি পাওয়া গেছে। এছাড়াও অপাস্তুরিত দুধের একটি নমুনাতে ফরমালিনও পাওয়া মিলেছে। অন্য একটিতে পাওয়া গেছে ডিটারজেন্ট।

এছাড়া বিএসটিআই স্ট্যান্ডার্ড অনুযায়ী দুধে ফ্যাট ইন মিল্ক থাকতে হবে ৩ দশমিক ৫ শতাংশের বেশি। বিশ্লেষণে পাস্তুরিত দুধের সাতটি নমুনার মধ্যে ছয়টিতেই এই পরিমাণে ফ্যাট ইন মিল্ক ছিল না। সলিড নট ফ্যাট থাকতে হবে ৮ দশমিক ২৫ শতাংশের বেশি। কিন্তু বিশ্লেষণে এসব দুধের সবগুলোতেই কম ছিল। এসিডিটি এনালাইসিসে যত থাকার কথা পাস্তুরিত দুধের একটি ও অপাস্তুরিত দুধের তিনটি নমুনাতে এর পরিমাণ ছিল বেশি।

Loading...