কাউখালীতে ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টা, ৯৯৯ এ কল

৮:৪৭ অপরাহ্ণ | শনিবার, জুলাই ৬, ২০১৯ বরিশাল
PIROJPUR

কাউখালী প্রতিনিধি- পিরোজপুরের কাউখালীতে ৬ষ্ঠ শ্রেণির স্কুল পড়ুয়া এক ছাত্রী ৯৯৯ এ কল করে প্রতিবেশি আল-আমিন বিরুদ্ধে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ করেন। বিচারের দাবীতে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় জেলে কণ্যা ওই স্কুল ছাত্রী নিজেই ৯৯৯-এ কল করে এ অভিযোগ করেন।

জানা গেছে, গত ১ জুলাই সোমবার সন্ধ্যায় উপজেলার বেকুটিয়ার গ্রামের ওই স্কুল ছাত্রীর পিতা নদীতে মাছ ধরতে এবং মা ছোট বোনকে নিয়ে হুজুরের বাড়িতে যায়। এই সুযোগে স্কুল ছাত্রীকে ঘরে একা পেয়ে প্রতিবেশি সুলতান হোসেনের ছেলে আল-আমিন (২০) পানি খাবার কথা বলে ঘরে ঢুকে দরজা বন্ধ করে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। মেয়েটি আত্মরক্ষাতে লম্পটের হাতে কামড় দিয়ে ছুটে গিয়ে দাও হাতে নিয়ে চিৎকার দিলে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এলে লম্পট আল-আমিন ঘরের দরজা খুলে দ্রুত পালিয়ে যায়।

এ ঘটনাটি কাউকে না বলার জন্য এবং থানা পুলিশকে না জানানোর জন্য প্রভাবশালীরা বিচারের নামে মেয়ের বাবা মাকে চাপ প্রয়োগ করে। ঘটনার ৩ দিনেও কোন সুরাহা না পেয়ে মেয়েটি আত্মহত্যার চেষ্টা করলে বাবা মায়ের অনুরোধে বিচারের আশায় বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মেয়ে নিজেই ৯৯৯ কল করে অভিযোগ করেন। পরে কাউখালী থানা পুলিশের এস আই মজিবর রহমান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে মেয়েসহ অভিভাবকের সাক্ষাৎকার লিপিবদ্ধ করেন।

এ বিষয়ে কাউখালী থানার ওসি কামরুজ্জামান তালুকদার সত্যতা ঘটনার নিশ্চিত করে জানান, এ বিষয়ে স্কুল ছাত্রীর মা ডলি বেগম বাদি হয়ে আল আমিনকে আসামী করে শুক্রবার সন্ধ্যায় একটি মামলা দায়ের করেন। আসামীকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।