টাঙ্গাইলে মুক্তিযোদ্ধা হাসান আলী হত্যান্ডের ঘটনায় পিতা-পুত্র ৩ দিনের রিমান্ডে

৯:৩৮ অপরাহ্ণ | সোমবার, জুলাই ১৫, ২০১৯ ঢাকা

মোল্লা তোফাজ্জল, টাঙ্গাইল প্রতিনিধি :  কৃষক শ্রমিক জনতালীগের প্রতিষ্ঠাতাকালিন কেন্দ্রীয় কমিটির অন্যতম সদস্য টাঙ্গাইলে জজ কোর্টের প্রবীণ আইনজীবী ও বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা মিয়া মোহাম্মদ হাসান আলী রেজাকে হত্যার ঘটনায় এক নারী, তার স্বামী ও ছেলেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

পরে ওই নারী সোমবার বিকেলে টাঙ্গাইলের অতিরিক্ত চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। ম্যাজিস্ট্রেট মনিরা সুলতানা জবানবন্দি রেকর্ড করেন। একই আদালত ওই নারীর স্বামী ও ছেলেকে তিনদিনের রিমা- মঞ্জুর করেন।পুলিশ তাদের সাতদিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে আবেদন করে। ওই নারী হলেন টাঙ্গাইল শহরের আকুরটাকুর এলাকার কল্পনা রানী সরকার (৪০)। তার স্বামী হলেন তপন কুমার সরকার (৩৮) ও ছেলে তন্ময় সরকার (১৯)।

রোববার সন্ধ্যায় নিজ বাসা থেকে পুলিশ তাদের গ্রেফতার করে।টাঙ্গাইলের কোর্ট ইন্সপেক্টর তানভীর আহম্মেদ বলেন, এ মামলায় গ্রেফতার হওয়া কল্পনা রানী আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। এছাড়া তার স্বামী ও ছেলেকে পুলিশ ৭দিনের রিমান্ড চাইলে আদালত ৩ দিনের রিমা- মঞ্জুর করেন। টাঙ্গাইল মডেল থানার এসআই ওয়াজেদ আলী বলেন, এই ঘটনায় জড়িত থাকা সন্দেহে রোববার সন্ধ্যায় শহরের আকুরটাকুর মুসলিম পাড়া থেকে তপন কুমার সরকার, তার স্ত্রী কল্পনা রানী ও তার ছেলে তন্ময় সরকারকে গ্রেফতার করা হয়। মামলার তদন্তকালে নিখোঁজ হওয়ার আগে হাসান আলী রেজার মুঠোফোনে চারবার কথা হয় ওই নারীর। এরই সূত্র ধরে তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

এদিকে এডভোকেট হাসান আলী রেজার হত্যাকারীদের দ্রুত গ্রেফতার ও ফাঁসির দাবিতে সোমবার সকালেও প্রতিবাদ সভা ও মানববন্ধন করেন আইনজীবীরা। আদালত চত্বরে আয়োজিত এই কর্মসূচিতে সভাপতিত্ব করেন জেলা এডভোকেট বার সমিতির সভাপতি রফিকুল ইসলাম খান আলো। আইনজীবীদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বার সমিতির সাবেক সভাপতি মো. নূরুল ইসলাম ও ফায়েকুজ্জামান নাজিব, জিপি আনন্দ মোহন আর্য্য এবং বার সমিতির সাধারণ সম্পাদক মঈদুল ইসলাম শিশির।

পরে একই দাবিতে তারা টাঙ্গাইলের জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করেন। একই সাথে সোমবার থেকে তিনদিন কালো ব্যাজ ধারণ কর্মসূচি শুরু করেন আইনজীবীরা।

এছাড়া হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবীতে মানববন্ধন করেছেন ঘাটাইল উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ও মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড।  সোমবার সকালে উপজেলা পরিষদের সামনে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার তোফাজ্জল হোসেনের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেনÑ ঘাটাইল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম লেবু, ঘাটাইল পৌরসভার সাবেক মেয়র আব্দুল রশিদ মিয়া, মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার শামসুল আলম মনি, নিহতের ছোট ভাই উপজেলা বিএনপির সাধারন সম্পাদক আ. খ. ম রেজাউল করিম, মুক্তিযোদ্দা এমদাদুল হক খান হুমায়ুন প্রমুখ।

উল্লেখ্য, হাসান আলী রেজা গত ৮ জুলাই সন্ধ্যার পর টাঙ্গাইল শহরের সাবালিয়া পাঞ্জাপাড়াস্থ নিজ বাসা থেকে চা খেতে বাইরে বের হয়ে নিখোঁজ হন। নিখোঁজের ব্যাপারে গত ৯ জুলাই তার ছেলে টাঙ্গাইল সদর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেন। নিখোঁজ হওয়ার পাঁচদিন পর গত ১৩ জুলাই দুপুরে লৌহজং নদী থেকে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। গত রোববার বাইতাইল দাখিল মাদ্রাসা মাঠে বাদ যোহর দ্বিতীয় জানাজা শেষে তাকে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।