সংবাদ শিরোনাম
  • আজ ৬ই কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

এডিস মশা সুযোগ পেলে মেয়রেরও রক্ত খাবে: ওবায়দুল কাদের

৩:১৯ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, আগস্ট ৬, ২০১৯ জাতীয়

সময়ের কণ্ঠস্বর, ঢাকা- এডিস মশার হাত থেকে বাঁচতে দেশকে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখতে মাঠে সবাইকে একযোগে মাঠে নামার আহ্বান জানিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, তা না হলে মন্ত্রী-এমপি কেউ-ই রেহাই পাবে না। সুযোগ পেলে মেয়রেরও রক্ত খাবে।

মঙ্গলবার (৬ আগস্ট) বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউতে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ডেঙ্গু মোকাবিলায় দলটির এক বিশেষ সভায় এসব কথা বলেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘এই এডিস মশা ভয়ঙ্কর, এই এডিস মশা কারো চেহারার দিকে তাকায় না,আপনি কাউন্সিলর, মন্ত্রী, এমপি নাকি মেয়র কোন দিকে তাকাবে না। সুযোগ পেলে রক্ত খাবে, মেয়রেরও রক্ত খাবে, মন্ত্রীর রক্ত খাবে, এমপির রক্ত খাবে, নেতার রক্ত খাবে-কাউকে ছাড়বে না।’

সবাইকে সচেতন হওয়ার পরামর্শ দিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ঢাকা সিটিতে প্রতিদিনই নতুন নতুন রোগীর সংখ্যা বাড়ছে। আমরা যতই মুখে নিয়ন্ত্রণের কথা বলি না কেন, এখনও এটা নিয়ন্ত্রণে আসেনি। বাস্তবে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণের বাইরে।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, ফটোসেশনের জন্য পরিচ্ছন্নতা অভিযান পরিচালনা করবেন না। আমরা চাই, ঢাকা সিটির প্রত্যেকটি ওয়ার্ডে পরিচ্ছন্নতা অভিযান। নেত্রী এটা জানতে চেয়েছেন। আপনাদের ওপর অর্পিত দায়িত্ব পালন করুন। নেত্রী কিন্তু বিভিন্ন সংস্থার মাধ্যমে মনিটরিং করছেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে এর আগে দেশব্যাপী পরিচ্ছন্নতা অভিযান পরিচালনা করার কথা তুলে ধরে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘এটা আমরা মীন করতে চাই যে, কর্মসূচিটি আমরা সিনসিয়ারলি এবং সিরিয়াসলি পালন করছি। জনস্বার্থে, আমাদের দলের স্বার্থে, নেত্রীর নির্দেশনায় দেশের স্বার্থে এই কাজটি আমরা করছি। ’

তিনি আরো বলেন, ‘মিডিয়া না থাকলে ডেঙ্গুকে গুজব বলে চালিয়ে দিত সরকার’ বিএনপির এমন বক্তব্যের দৃষ্টি আকর্ষন করলে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমি বলবো মিডিয়া না থাকলে বিএনপি যে একটা রাজনৈতিক দল এর অস্তিত্ব খুঁজে পাওয়া কঠিন হতো। মিডিয়া না থাকলে বিএনপি যে আছে এটা বোঝার কোন উপায় আছে?’

মন্ত্রী বলেন ‘নির্বাচনে তারা ব্যর্থ, আন্দোলনে তারা ব্যর্থ। এত বড় বন্যা হয়ে গেলো ছিটেফোঁটা দু’একটা জায়গায় গিয়ে ফটো সেশন করে শেষ। ডেঙ্গু অভিযানেও তারা নেই, তারা শুধু মুখে মুখে আবাসিক প্রতিনিধি পল্টনের অফিসে বসে কথা বলছে। মিডিয়া না থাকলে আজকে জনগন কিভাবে বুঝতো এই দল যে আছে?‘